মেইন ম্যেনু

দুই দেশে ১৫ দিনের দীর্ঘ সফর

নতুন শ্রমবাজারের সন্ধানে থাইল্যান্ড-অস্ট্রেলিয়ায় মন্ত্রী

১৫ দিনের দীর্ঘ সফরে থাইল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ায় গেছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি। এই সফরের মাধ্যমে সম্ভাবনাময় শ্রমবাজার খুলতে পারে বলে আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা।

সোমবার দুপুর পৌনে ২টায় হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে একটি ফ্লাইটে ঢাকা ত্যাগ করেন তিনি। মন্ত্রী প্রথমে থাইল্যান্ড চার সদস্য বিশিষ্ট টিম নিয়ে সফর করবেন এবং সেখান থেকে পাঁচ সদস্য বিশিষ্ট উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দল নিয়ে অস্ট্রেলিয়া সফর করবেন।

মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা যায়, থাইল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ায় সম্ভাবনাময় বিশাল শ্রমবাজারে বাংলাদেশি কর্মীদের নিয়োগের সুযোগ সৃষ্টির লক্ষ্যে মন্ত্রীর এ সফর। সফরে থাইল্যান্ডে নির্মাণ শ্রমিক, জেলে ও মৎস্য প্রক্রিয়াকরণ এবং অস্ট্রেলিয়াতে কৃষি, আবাসন, মাইনিং, নার্সিং ও বুচারি পেশায় বাংলাদেশি কর্মীদের সম্ভাবনাময় শ্রমবাজার নিয়ে আলোচনা হবে।

থাইল্যান্ডে সফরকালে প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রী সে দেশের শ্রমমন্ত্রীর সাথে সম্ভাবনাময় এসব শ্রমবাজারসহ বিভিন্ন বিষয়ে দ্বি-পক্ষীয় বৈঠক করবেন। অস্ট্রেলিয়া সফরকালে মন্ত্রী সেদেশের শ্রম বাজারের চাহিদা অনুযায়ী দক্ষ কর্মী প্রেরণ করতে কারিগরি ট্রেনিং ইনস্টিটিউটের সাথে যৌথ সহযোগিতায় প্রশিক্ষণ ও স্বীকৃতি লাভের জন্য Technical and Further Education (TAFE), Careers Australia এবং সিডনিস্থ Macquavic University সরেজমিনে পরিদর্শন করবেন এবং তাদের সাথে আলোচনা করবেন। আর ১৫ দিনের এ সফরে শেষে মন্ত্রী আগামী ৩০ নভেম্বর দেশে ফিরবেন বলে আশা করা যাচ্ছে।

থাইল্যান্ড সফরকালে প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রীর সফরসঙ্গী হিসেবে রয়েছেন বিএমইটির মহাপরিচালক (অতিরিক্তি সচিব) বেগম শামছুন নাহার, উপ-সচিব মো. বদরুল আরেফিন ও প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রীর একান্ত সচিব মুহা. মোহাসিন চৌধুরী।

অস্ট্রেলিয়া সফরে মন্ত্রীর সফরসঙ্গী হিসেবে থাকছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব খন্দকার মো. ইফতেখার হায়দার, যুগ্ম-সচিব মোহাম্মদ আজহারুল হক, কাজী আবুল কালাম ও মন্ত্রীর একান্ত সচিব।






মন্তব্য চালু নেই