মেইন ম্যেনু

নবীগঞ্জে ভূয়া ভিজিটিং কার্ড তৈরি করে মিথ্যা অপ-প্রচার

(হবিগঞ্জ) নবীগঞ্জ প্রতিনিধি : নবীগঞ্জে ভূয়া ভিজিটিং কার্ড তৈরি করে মিথ্যা অপ-প্রচার উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবরে অভিযোগ দায়ের। নবীগঞ্জ উপজেলার ৯নং বাউসা ইউনিয়নের কামিরাই গ্রামের নৌশাদ আলীর পুত্র এম.এ নেছার আহমদ এর নামে একটি কু-চক্রি মহল ভিজিটিং কার্ড তৈরি করে সাধারণ মানুষদের মধ্যে অপ প্রচার চালাচ্ছে।

এর প্রতিকার চেয়ে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার তাজিনা সারোয়ার বরাবরে একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করে ছে। সে সিলেট এমসি কলেজের মাস্টার্স অধ্যায়নরত ২য় বর্ষের ছাত্র এম.এ নেছার আহমদ। অভিযোগ বিবরণে জানাযায়, এম.এ নেছার আহমদ নামে ভিজিটিং কার্ডে সনদপ্রাপ্ত দলিল লিখক, সাব রেজিষ্ট্রার অফিস নবীগঞ্জ, সেবা সমূহ হচ্ছে, ভূমি’র কাগজপত্র, বিয়ের কাবিনের নোটারী পাবলিক, পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়, আইন মন্ত্রনালয়সহ কাজ করা হয় মর্মে উল্লেখ করে বিভিন্ন স্থানে অপ-প্রচার চালানো হচ্ছে।

ওই বিষয়টি শুনে আমি হতভাগ হয়েছি, কারণ আমি ওই ধরণের কোন ভিজিটিং কার্ড করিনি বা এধরনের কোন কাজের সাথে জড়িত আমি নেই। আমি নবীগঞ্জ সাব রেজিষ্ট্রার অফিসের সিনিয়র দলিল লিখক মোঃ তোফাজ্জুল হোসেন সাহেব এর সাথে তাহার সহকারী দলিল লিখক হিসেবে কাজ করি। আমাকে সমাজে হেয় প্রতিপন্ন করার হীন উদ্দেশ্যে একটি কু-চক্রি মহল অপ-প্রচার চালাচ্ছে।

আমার ধারনা এর পূর্বে জনৈক এক দলিল লিখক তার সাথে কাজ করার জন্য আমাকে প্রস্তাব দিয়েছিল ওই প্রস্তাবে আমি রাজি না হওয়ায় সে আমার নামে ভিজিটিং কার্ড তৈরি করে সাধারণ মানুষের মধ্যে মিথ্যা অপ-প্রচার চালাচ্ছে। ওই বিষয়টি খতিয়ে দেখার জন্য প্রশাসনের স-দৃষ্টি কামনা করছেন।






মন্তব্য চালু নেই