মেইন ম্যেনু

নিখোঁজ ছেলে এক সপ্তাহ পর হয়ে গেল মেয়ে

ছেলে এক সপ্তাহ থেকে নিখোঁজ। হঠাৎ করেই বাড়িতে পুলিশের ফোন। ছেলের সন্ধান পাওয়া গেছে ভেবে আনন্দে পরিবারের সবাই লাফালাফি করছে।

পরিবারের আশা ছিল, পুলিশ বলবে, ছেলেকে খুঁজে পাওয়া গেছে। কিন্তু ফোন তুলতেই পুলিশ যা বলল, তা শোনার জন্য মোটেও প্রস্তুত ছিল না পরিবার। পুলিশ জানাল, ‘আপনাদের ছেলে আর ছেলে নেই, এখন থেকে তিনি আপনাদের মেয়ে।’

এমন ঘটনা ঘটেছে ভারতের মাধবপুরে। টাইমস অব ইন্ডিয়া এ খবর জানিয়েছে।

পুলিশ জানায়, ওই যুবক তাঁর লিঙ্গ পরিবর্তনের জন্যই নিখোঁজ হয়েছিলেন। এমন খবর শোনার পর তাঁর বাবা-মা, ছোট বোন এই ধাক্কা সামলে ওঠার চেষ্টা করছেন।

পুলিশ বলছে, শ্যাম একজন স্নাতক ডিগ্রিধারী। কয়েক বছর আগে শ্যাম উপলব্ধি করতে পারেন যে তিনি ছেলে থেকে মেয়েতে রূপান্তর হতে যাচ্ছেন। সেই সময় শ্যাম তাঁর লিঙ্গ পরিবর্তনের বিষয়টি পরিবারকে বোঝানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু পরিবার তাঁর কথা শোনেনি। এক সপ্তাহ আগে শ্যাম নিখোঁজ হওয়ার আগপর্যন্ত পরিবারের সবাই ভাবছিলেন, সবকিছু ঠিক আছে।

এ ঘটনার তদন্তকারী মাধবপুরের সহকারী উপপরিদর্শক (এসআই) কে এন মানত বলেন, ‘ওই পরিবার থানায় তাঁদের ছেলে নিখোঁজের অভিযোগ করেছিলেন। আমরা ফোন ট্র্যাকিংয়ের মাধ্যমে নবরঙ্গপুরে তাঁর অবস্থান জানতে পারি। সেখানকার একটি বেসরকারি হাসপাতালের কাছে পার্কে পুলিশ তাঁর মোটরবাইক খুঁজে পায়।’

এই পুলিশ কর্মকর্তা আরো বলেন, ‘শ্যাম লিঙ্গ পরিবর্তনের অপারেশনের জন্যই সেখানে গিয়েছিলেন। তিনি আমাদের জানিয়েছেন, নিজের ইচ্ছায় তিনি তাঁর লিঙ্গ পরিবর্তনের জন্য অপারেশন করছেন। আমরা তাঁর পরিবারকে বিষয়টি জানাই এবং মামলাটি নিষ্পত্তির কথা বলি। খবর পেয়ে তাঁর পরিবার হাসপাতালে গেলেও শ্যাম তাঁদের সঙ্গে দেখা করতে অসম্মতি জানিয়েছেন।’






মন্তব্য চালু নেই