মেইন ম্যেনু

নির্বাচনের নামে তামাশা করছে সরকার : নজরুল

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খান সরকারের বিরুদ্ধে স্বাধীনতার সুবর্ণ ফসল গণতন্ত্র ধ্বংস করার অভিযোগ এনে বলেছেন, আজ তারা নির্বাচনের নামে যা করছে, তা গণতন্ত্র নয়, তা তামাশা।

প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান এর ৩৫তম শাহাদাত বার্ষিকী উপলক্ষে তার রাজনৈতিক দর্শন ও কর্মময় জীবনভিত্তিক এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

রোববার খুলনার হোটেল টাইগার গার্ডেন ইন্টারন্যাশনাল অডিটোরিয়ামে এ আলোচনা সভার আয়োজন করে মহানগর বিএনপি।

নজরুল ইসলাম খান বলেন, সরকার জানে তারা জনপ্রিয়তাহীন, তাদের পায়ের তলায় মাটি নেই। তারা নির্বাচন নিয়ে ষড়যন্ত্র করবে উল্লেখ করে তিনি বলেন, এটা প্রতিহত করতে জনগণকে সঙ্গে নিয়ে আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে এবং শিগগিরই আর একটি বিজয়ের ইতিহাস সৃষ্টি করতে হবে।

নজরুল ইসলাম আরো বলেন, প্রধানমন্ত্রীর তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের অ্যাকাউন্টে তিনশ মিলিয়ন ডলারের সন্দেহজনক লেনদেনের বিষয়টি ধামাচাপা দেয়ার জন বিএনপি নেতা আসলাম চৌধুরীর নাটক সাজিয়েছে সরকার।

কিন্তু আজ যখন প্রকাশ পাচ্ছে মোসাদের ওই এজেন্টের সঙ্গে জয়েরও সাক্ষাৎ হয়েছে, তখন আওয়ামী লীগ দাবি করছে এটা নাটক। অর্থাৎ আমাদের নেতার সঙ্গে আলাপ হলে সেটা ষড়যন্ত্র, আর তাদের নেতার সঙ্গে আলাপের অভিযোগ নাটক।

তিনি বলেন, ভারতের একান্ত মিত্র মোসাদের সঙ্গে ভারতের বুকে বসে কোনো বেয়াকুব ছাড়া অন্য কেউ ষড়যন্ত্র করতে পারে না। এসময় তিনি প্রবীণ সাংবাদিক শফিক রেহমানকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করা হয়েছে বলেও দাবি করেন।

বিএনপির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও খুলনা মহানগর কমিটির সভাপতি নজরুল ইসলাম মঞ্জুর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য ও ড্যাবের মহাসচিব ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন চেয়ারপারসনের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য সাবেক সংসদ সদস্য এম নুরুল ইসলাম দাদু ভাই এবং বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অনিন্দ্য ইসলাম অমিত প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই