মেইন ম্যেনু

নুসরাত ফারিয়ার ‘হিরো ৪২০’ নিয়ে যা বলেছে জাজ

সার্থক হলেন ‘আশিকী’ খ্যাত নুসরাত ফারিয়া। কারণ, বাংলাদেশের চলচ্চিত্র ব্যবসায় যে মন্দা অবস্থা বিরাজ করছিলো সেটি কিছুটা হলেও মুছে দিতে পেরেছে সৈকত নাসির পরিচালিত ‘হিরো ৪২০’ ছবিটি।

জাজের মতে, চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে এ পর্যন্ত মুক্তিপ্রাপ্ত কোনো ছবিই সেভাবে দর্শক টানতে পারেনি। তাই ‘হিরো ৪২০’ এমন সাফল্যে জাজ মাল্টিমিডিয়ার পুরো ইউনিট আনন্দিত।

জাজের অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ থেকে তেমনি এক আভাস মিলেছে।

জাজের পক্ষ থেকে লেখা হয়েছে: ‘অনেক দিন যাবত একটা হিট সিনেমা দরকার ছিল। জাজ এর জন্য, বাংলা চলচ্চিত্রের জন্য। এর আগেও এ রকম দুই বার হয়েছে। যখন চলচ্চিত্র বন্ধের মুখে তখন “ভালোবাসার রং” দিয়ে বাংলা সিনেমা ঘুরে দাড়ায়। তারপর সরকার পতনের আন্দোলনের পর আবার সিনেমা ভালো যাচ্ছিল না।

তখন “অগ্নি” দিয়ে আবার ব্যবসা সফল হতে শুরু করে। গত কোরবানির ঈদ এর পর থেকে কোনো সিনেমাই আর আশানুরূপ ব্যবসা করতে পারেনি। এখন একটা হিট সিনেমা খুব বেশি রকমের দরকার ছিলো। আর সেই আশা পূরণ করতে সক্ষম হলো ‘হিরো ৪২০’।

গত ৩ দিন একই রকম সেল ছিল। ধন্যবাদ দর্শক, ধন্যবাদ সৈকত নাসির, ধন্যবাদ “হিরো ৪২০” এর পুরো টিমকে। আশা রাখছি সৈকত নাসির’র কাছ থেকে এরকম আরো হিট ছবি পাবো। সঙ্গে থাকুন।’

যৌথ প্রযোজনার সিনেমা হিরো ‘৪২০’ গত ১৯ ফেব্রুয়ারি মুক্তি পেয়েছে দেশের ৯০টি হলে। সৈকত নাসিরের পরিচালনার ছবিটি মুক্তির আগে ছিলো নানা তর্ক ও বির্তক। ছবিটি ব্যবসা সফল করার জন্য ছবির প্রধান নায়িকা নুসরাত ফারিয়া দিন-রাত এক করে ছুঁটেছেন দর্শকদের কাছে অবশ্য তার সঙ্গী হিসেবে সবসময় পাশে ছিলেন কলকাতার হিরো ওম।

3AL4e1EI5tWe

ছবিটি মুক্তি পাওয়ার বিভিন্ন গণমাধ্যমকে জাজ মাল্টিমিডিয়ার কর্ণধার আব্দুল আজিজ বলেছেন, আমাদের চলচ্চিত্রের বাজার একদমই ভালো যাচ্ছে না। দর্শক হলে টানতে চেষ্টার ত্রুটি রাখছি না।

তেমন করে বলার মতো সাফল্য না পেলেও ‘হিরো-৪২০’ ছবিটি আশা জাগিয়েছে আমাদের। ভালো গল্প ও নির্মাণ পেলে দর্শক হলে আসবেই। এখন পর্যন্ত যেভাবে চলছে আমরা আশাবাদি ভালো একটা ফলাফল ঘরে তুলবে ছবিটি।

বাংলাদেশের সৈকত নাসির এবং কলকাতার সুজিত মন্ডল পরিচালিত ‘হিরো ৪২০’ ছবিটিতে প্রধান চরিত্রে অভিনয় করেছেন ওম, নুসরাত ফারিয়া এবং রিয়া সেন। অ্যাকশন ও রোমান্টিকধর্মী ত্রিভুজ প্রেমের গল্প নিয়ে নির্মিত হয়েছে ছবিটি।






মন্তব্য চালু নেই