মেইন ম্যেনু

পদত্যাগ করলেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী

পদত্যাগ করেছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী সুশীল কৈরালা। গতকাল শুক্রবার রাতে নেপালের রাষ্ট্রপতি রাম বরণ যাদবের কাছে পদত্যাগপত্র হস্তান্তরের ঘোষণা দেন তিনি।

অন্য কারো ওপর দেশের দায়িত্ব অর্পণের জন্যই তার এই সিদ্ধান্ত বলে জানিয়েছেন তিনি।

দেশটির পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে কম্যুনিস্ট পার্টি অব নেপালের (ইউনিফাইড মার্ক্সিস্ট-লেনিনিস্ট) চেয়ারম্যান খড়্গ প্রসাদ শর্মা ওলির নাম গুজবে শোনা যাচ্ছে বলে জানিয়েছে নেপালের স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো।

প্রসঙ্গত, সম্প্রতি নতুন এক সংবিধান তৈরি করেছে নেপাল। এই সংবিধানের মাধ্যমে হিন্দু রাজতন্ত্র থেকে একটি ধর্মনিরপেক্ষ গণতান্ত্রিক প্রজাতন্ত্রে রূপান্তরিত হয়েছে দেশটি। ২০১৪ সালের ১০ ফেব্রুয়ারি নেপালের প্রধানমন্ত্রীর পদে বসেছিলেন নেপালী কংগ্রেস দলের প্রধান সুশীল কৈরালা।

২০১৪ সালের মার্চ মাসে এক বিবৃতিতে কৈরালা জানিয়েছিলেন যে নতুন সংবিধান জারির পরই তাৎক্ষণিকভাবে প্রধানমন্ত্রীর পদ ছাড়বেন তিনি। নতুন সংবিধান জারির পরি নেপালের বিধানসভা পরিণত হয়েছে আইনসভায়। ফলে নতুন নেতা নির্বাচনের সুযোগ করে দিতে পদত্যাগ করতে হবে দেশটির বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ও রাষ্ট্রপতি দু’জনকেই।

অবশ্য পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ওলির নিয়োগ ভারতের জন্য সমস্যা হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে। কারণ নেপালের নতুন সংবিধানের বিষয়ে ভারতের প্রতিক্রিয়ার ঘোর বিরোধিতা করে এসেছেন ওলি।

নেপালের সংবিধান মদেশিয়াসহ দেশটির সবগুলো সম্প্রদায়ের অধিকার রক্ষার ভিত্তিতে তৈরি করার জন্য ভারত আহ্বান জানিয়েছিল।

ধারণা করা হচ্ছে, নেপালের বর্তমান রাষ্ট্রপতি রাম বরণ যাদবের পদত্যাগের পর পদটিতে বসতে পারেন কৈরালা।

এনকে






মন্তব্য চালু নেই