মেইন ম্যেনু

পরকিয়ায় জড়িয়ে ড্রাইভারের সাথে পালিয়েছে দুই সন্তানের জননী

বরুড়ার মির্জানগর গ্রামের মালয়েশিয়া প্রবাসি মোঃ হোসেন (৪২) এর স্ত্রী শাহিদা আক্তার (৩২) একই বাড়ির দেবর ড্রাইভার মোঃ মহিন উদ্দিনের (২৮) সাথে পালিয়ে যাওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

থানায় দেওয়া অভিযোগ সূত্রে যানা জায়, বরুড়া উপজেলার জগদা সার গ্রামের মোঃ আব্দুল আজিজের মেয়ে শাহিদা বেগমকে মির্জানগর গ্রামের মৃত কলিম উদ্দিনের প্রবাসি পুত্র মোঃ হোসেন বার (১২) বছর আগে বিয়ে করেন। তাদের পরিবারে এক পুত্র ও এক কন্যা সন্তান জন্ম নেয়। জীবিকা নির্বাহের তাগিদে হোসেন চাকুরি করতে মালয়েশিয়া চলে যায়।

এই সুবাদে একই বাড়ির সৌদি প্রবাসি দুলা মিয়ার পুত্র ড্রাইভার মোঃ মহিন উদ্দিনের সাথে পরকিয়ায় জড়িয়ে পরে হোসেনের স্ত্রী শাহিদা আক্তার। বিষয়টি নিয়ে একাধিক বার পারিবারিক সালিশ হলে ও দিনে দিনে ওরা বেপরোয়া হয়ে ওঠে। বাড়ির লোকজন কয়েকবার তাদের অসামাজিক কাজে লিপ্ত থাকা অবস্থায় ধরে ফেলে এবং সাবধান করে দেয়। গত ০৯/০৬/১৫ তারিখ ড্রাইভার মোঃ মহিন উদ্দিনের সাথে পালিয়ে যায় এবং একই তারিখে স্বামী মোঃ হোসেনকে আদালতের মাধ্যমে তালাকের নোটিশ পাঠায়।

মোঃ হোসেন সাংবাদিকদের বলেন ড্রাইভার মোঃ মহিন উদ্দিন আমার স্ত্রীকে বিয়ের আস্বাশ দিয়ে বিদেশ থেকে আমার পাঠানো ১০ লক্ষ টাকা ও ৭ ভরি স্বর্ন নিয়ে পালিয়ে যায়। আমি বর্তমানে আমার দুই সন্তানকে নিয়ে অসহায় জীবন যাপন করছি। তাদেরকে আইনগত ব্যাবস্থা নিতে প্রসাশনের কাছে অনুরোধ রইল।

অভিযোগ তদন্তকারি কর্মকর্তা এস আই মোঃ জাকির হোসেন বলেন আমি বাদি-বিবাদি দুই গ্রামের তিন পরিবারের লোকজন ও স্বাক্ষী সহ এলাকার লোকজরের সাথে কথা বলে এগছি ঘটনার সত্যতা পাওয়া গেছে।






মন্তব্য চালু নেই