মেইন ম্যেনু

পানির পরিবর্তে খেতে পারেন এই ৭টি খাবার

একজন পূর্ণ বয়স্ক মানুষের দিনে ৮ গ্লাস অথবা ২ লিটার পানি পান করা উচিত। কোন কোন বিশেষজ্ঞ মনে করেন ৭ গ্লাস অথবা তারচেয়ে বেশি পানি পান করা উচিত। পানি আমাদের শরীরকে হাহড্রেটেড রাখে। এর সাথে শরীর থেকে বিষাক্ত পর্দাথ দূর করে দেয়। কিন্তু এই পানি পানে অনেকের অনীহা কাজ করে। আপনি যদি তাদের দলের হয়ে থাকেন, তবে জেনে নিন শরীর হাইড্রেটেড রাখার জন্য সবসময় পানি পান করার প্রয়োজন নেই। কিছু খাবার আছে যা পানির চাহিদা পূরণ করে। এই খাবারগুলো প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় রাখুন। এমনকি এই রোজার সময় ইফতারেও রাখতে পারেন এই খাবারগুলো।

১। টকদই

টকদইয়ে ৮৫% থেকে ৮৮% পর্যন্ত পানি রয়েছে। এছাড়া টকদইয়ে ক্যালসিয়াম, ভিটামিন বি, রিবোফ্লেবিন রয়েছে। টকদই খালি অথবা অন্য যেকোন ফল অথবা সবজির সাথে মিশিয়ে খেতে পারেন।

২। শসা

শসাতে ৯৬.৭% পানি রয়েছে। এটি আপনার শরীরে পানির চাহিদা পূরণ করে থাকে। সালাদ, শসার জুস অথবা খাবারের সাথে খালি শসা খেতে পারেন। এক কাপ শসা এক গ্লাস পানির সমান। এছাড়া শসাতে রয়েছে ভিটামিন সি, ভিটামিন কে, পটাশিয়াম যা শরীরে পুষ্টির চাহিদা পূরণ করা থাকে।

৩। তরমুজ

এই গরমে যে ফলগুলো বাজারে সবচেয়ে বেশি দেখতে পাওয়া যায়, তার মধ্যে তরমুজ অন্যতম। এতে ৯৩% পানি রয়েছে। এতে মিনারেল, লবণ এবং প্রাকৃতিক চিনি রয়েছে। শুধু তাই নয় তরমুজ ম্যাগনেসিয়াম, পটাসিয়াম আরও অনেক ভিটামিনের চাহিদা পূরণ করে থাকে।

৪। টমেটো

সালাদ অথবা খাবারে টমেটো রাখুন। টমেটোর ৯৪.৫% পানি। এটি শরীর হাইড্রেটেড করে পানির চাহিদা পূরণ করে থাকে। পানির সাথে সাথে এতে ভিটামিন, মিনারেল, কারোটিনসাইড, আলফা এবং বিটা কারোটিন রয়েছে।

৫। গাজর

আপাতত দৃষ্টিতে গাজরকে শক্ত অথবা সলিড খাবার মনে হলেও, এর ৯০% পানি। পানির সাথে সাথে এতে রয়েছে বিটা কারটিন যা দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধি করে এবং ক্যান্সার প্রতিরোধ করে। সালাদ অথবা স্মুদি হিসেবে গাজর খেতে পারেন।

৬। মুলা

এই সবজিটি অনেকে অপছন্দ করে থাকেন। কিন্তু মুলায় প্রায় ৯৫% পানি রয়েছে। যা শসা, তরমুজ, লাল ক্যাপসিকামের মত পানির চাহিদা পূরণ করে থাকে। সালাদ হিসেবে মুলা খেতে পারেন। এছাড়া এতে রয়েছে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট ক্যাটেচিন এবং রিবোফ্ল্যাভিন যেটা প্রোটিন, চর্বি ও কার্বোহাইড্রেটকে ভাঙতে এবং দেহে শক্তি জোগাতে সাহায্য করে।

৭। ফুটি বা ‘বাঙ্গি’

এই ফলটিতে ৯০.২% শুধু পানি। একটি অর্ধেক ফুটি প্রায় সিকি পরিমাণ তরমুজের চাহিদা পূরণ করে। এতে ৫০% ক্যালরি এবং ১০০% ভিটামিন এ এবং সি রয়েছে। ফুটি জুস অথবা ফ্রুট সালাদ করে খেতে পারেন।






মন্তব্য চালু নেই