মেইন ম্যেনু

পানির বোতল ব্যবহার করলে এই কাজটা অবশ্যই করুন

বোতল থেকে মিনারেল ওয়াটার কিনে খেলেন। খেয়েই বাইরে ছুঁড়ে দিলেন বোতলটা। এমনটা করেই আমরা অভ্যস্ত। সে তো বটেই জল খাওয়ার পর বোতলটা তো বোঝা হয়ে দাঁড়ায়। কিন্তু জানেন কী ওই যে বোতলটা বাইরে ছুঁড়ে দিলেন। সেটার পরিনাম কত মারাত্মক হতে পারে। ধরুন ট্রেনে বসে জল খেয়ে বোতলটা বাইরে ফেলে দিলেন। বাইরে তখন ঘাপটি মেরে চাতক পাখির মত আপনার খালি বোতলের অপেক্ষায় অসাধু ব্যবসায়ীদের ‘সর্বহারা’ এজেন্টরা। তারা খালি বোতলগুলো সংগ্রহ করে অসাধু ব্যবসায়ীদের হাতে তুলে দেয়।

তারপর সেই খালি বোতলকে কোনওরকমে ধুয়ে (কখনও আবার না ধুয়ে) ট্যাপের জল ভরে মিনারেল ওয়াটারের দামে বাজারে বিক্রি করা হয়। প্যাকেজিংয়ের গুণে আপনি বুঝতেও পারবেন না যে মিনারেল ওয়াটারের বোতলটা আপনি দাম দিয়ে কিনলেন সেটা আসলে আপনার ফেলে দেওয়া ওই আগের বোতলটাই। এতে লাভে ফুলে ফেঁপে ওঠে অসাধু ব্যবসায়ীরা। আর চূড়ান্ত প্রতারিত হন ক্রেতা।

অনেক চেষ্টার পরেও এই অসাধু ব্যবসা বন্ধ করা যায়নি। রাজ্য, রাজ্যের বাইরে হইহই করে চলে এই ব্যবসা। কিন্তু জানেন কী একটু সচেতন হলে আপনি নিজেই এই ব্যবসায় বাধা দিতে পারেন। একটা ছোট্ট ট্রিকস ফলো করলে। বোতলে জল খাওয়া হয়ে গেল, ছিপিটা খুলে নিন। তারপর সেই ছিপিটা বোতলের মধ্যে ঢুকিয়ে দিন। ব্যস, সেই বোতল ফের ব্যবহার করার আর উপায় থাকবে না। সাধারণ ক্ষেত্রে বোতলের ছিপি তখনই বের করা সম্ভব হবে, যখন সেটিকে রিসাইকেলিং করা হবে।






মন্তব্য চালু নেই