মেইন ম্যেনু

পুলিশকে বাণিজ্যের সুযোগ করে দিতেই সাঁড়াশি অভিযান

জঙ্গি দমনে সাঁড়াশি অভিযানের নামে সরকার আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে হাজার কোটি টাকা বাণিজ্য করার সুযোগ করে দিয়েছে বলে দাবি করেছেন জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টির (জাগপা) সভাপতি শফিউল আলম প্রধান।

শুক্রবার দুপুরে রাজধানীর পুরানা পল্টনের বাংলাদেশ ফটো জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশন মিলায়তনে জাতীয়তাবাদী সাংস্কৃতিক দল আয়োজিত এক প্রতিবাদ সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে এ দাবি করেন তিনি।

সারা দেশে গুম-খুন-গুপ্তহত্যা ও সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের ওপর হামলা এবং বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের গণগ্রেপ্তারের প্রতিবাদে এ সভার আয়োজন করা হয়।

প্রধান বলেন, ‘জোটনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া প্রশ্ন তুলেছেন, এই সরকার নিজেরা দেশ চালায়, নাকি নেপথ্যে অন্য কেউ আছে? সেটা আমাদের ভেবে দেখতে হবে। কারণ, মুক্তিযুদ্ধ করেই আমরা আমাদের দেশকে স্বাধীন করেছি। কারো দয়ায় বাংলাদেশ স্বাধীন হয়নি।’

তিনি দাবি করে বলেন, ‘আমরা সাহস করে সত্যকে সত্য বলছি না অথবা বলার চেষ্টা করছি না কিংবা নিজেদের সুবিধামতো সময়ে বলছি। সেজন্যই আমরা আজকে দুর্দশায় পতিত। এর থেকে বের হতে পারছি না।’

ক্ষমতাসীনদের সমালোচনা করে জাগপা সভাপতি বলেন, সারা দেশে সুপরিকল্পিতভাবে সাম্প্রদায়িক আবহ তৈরির চেষ্টা করা হচ্ছে। এটা করা হচ্ছে খুব কৌশলে, কায়দা করে। তবে সাম্প্রদায়িক চক্রান্তের সে ফাঁদে পা দেয়া যাবে না। এ ব্যাপারে আমাদের সচেতন হতে হবে।

দেশ ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে উল্লেখ করে প্রধান দাবি করে বলেন, আলোকিত জাতীয় রাজনীতিই কেবল বর্তমান সঙ্কটময় পরিস্থিতির উন্নতি ঘটাতে পারে।

জাতীয়তাবাদী সাংস্কৃতিক দলের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির বেপারীর সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য লেফটেন্যান্ট জেনারেল (অব.) মাহবুবুর রহমান। এ ছাড়া আরো বক্তব্য দেন- বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদু, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক ড. সুকোমল বড়ুয়া, বিএনপির যুগ্ম-মহাসচিব খায়রুল কবির খোকন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম আজাদ, বাংলাদেশ জাতীয় দলের চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট সৈয়দ এহসানুল হুদা, যুবদলের দপ্তরের দায়িত্বপ্রাপ্ত যুগ্ম-সম্পাদক কাজী রফিক, জিনাফ সভাপতি মিয়া মো. আনোয়ার প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই