মেইন ম্যেনু

প্রকাশ্যে স্কুলশিক্ষিকাকে অপহরণ, ১০ লাখ টাকা দাবি

ফরিদপুরে মণিকা সাহা (৩৪) নামে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এক স্কুলশিক্ষিকাকে অপহরণ করা হয়েছে। এরপর অপহরণকারীরা মণিকার স্বামী বলরাম পোদ্দারের কাছে ১০ লাখ টাকা মুক্তিপণ দাবি করেছে।

সোমবার বিকেল ৫টার দিকে ফরিদপুর শহরের ঝিলটুলী সোনালী ব্যাংক প্রধান কার্যালয়ের সামনের মোড় থেকে ওই স্কুলশিক্ষিকাকে অপহরণ করা হয়। এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।

দুই সন্তানের মা মণিকা সাহা ফরিদপুর সদরের চর চাঁদপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক। বর্তমানে তিনি শহরের কমলাপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সংযুক্ত শিক্ষক হিসেবে কর্মরত রয়েছেন।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মণিকা বিকেলে সোনালী ব্যাংকের মোড় এলাকায় এলে একটি সাদা রঙের মাইক্রোবাস তাঁর সামনে এসে থামে। পরে অপহরণকারীরা মাইক্রোবাসে শিক্ষিকাকে জোর করে তুলে নিয়ে চলে যায়।

এ ব্যাপারে মণিকা সাহার স্বামী বলরাম পোদ্দার ফরিদপুর কোতোয়ালি থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন। বলরাম জানিয়েছেন, অপহরণকারীরা অচেনা একটি নম্বর থেকে স্ত্রীর মুক্তিপণ বাবদ ১০ লাখ টাকা দাবি করেছে।

কোতোয়ালি থানার উপপরিদর্শক (এসআই) বেলাল হোসেন জানান, ‘স্কুলশিক্ষিকার স্বামী একটি অভিযোগ দিয়েছেন। সেই মোতাবেক আমরা স্কুলশিক্ষিকা মণিকা সাহাকে উদ্ধার করার জোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। আশা করছি, খুব তাড়াতাড়ি তাঁকে উদ্ধার করা সম্ভব হবে।’






মন্তব্য চালু নেই