মেইন ম্যেনু

প্রতারণার মামলা হচ্ছে মাহির বিরুদ্ধে

মুসলিম পারিবারিক আইন মেনে চিত্র নায়িকা মাহির বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা করতে যাচ্ছে মাহিকে স্ত্রী দাবিদার শাওনের পরিবার। আগামী সপ্তাহে এ মামলা হতে পারে বলে জানিয়েছেন শাওনের আইনজীবী বিল্লাল হোসেন।

বৃহস্পতিবার সকালে শাওনের আইনজীবী বিল্লাল হোসেন জানান, মুসলিম পারিবারিক আইন অনুযায়ী একজন নারী একটি বিয়ে করতে পারেন। আইনগতভাবে প্রথম বিয়ে বিচ্ছেদের পর দ্বিতীয়বার বিয়ে করতে পারেন। মাহি এটা করেননি। এ কারণে তার বিরুদ্ধে শাওনের পরিবার মামলা করবে। মামলার কাগজপত্র প্রস্তুত করা হচ্ছে। আগামী সপ্তাহে পারিবারিক আদালতে এ মামলা করা হবে।

শাওনের পরিবার সিদ্ধান্ত নিয়েছে, আইনগত দিক বিবেচনা করে মাহির বিরুদ্ধে প্রতারণার মামলা দায়ের করার। এজন্য তারা আইনজীবীর সঙ্গে পরামর্শ করেছেন। রোববার কিংবা সোমবার তারা এ মামলা করতে পারেন বলেও জানান বিল্লাল হোসেন।

বৃহস্পতিবার দুপুর পৌনে ১২টায় এ ব্যাপারে কথা বলতে মাহিয়া মাহির মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলেও তিনি সাড়া দেননি।

মহানগর পুলিশের গণমাধ্যম শাখার উপকমিশনার (ডিসি) মাসুদুর রহমান বলেন, শাওন যদি ভুক্তভোগী হন তাহলে আদালতের দ্বারস্থ হতেই পারেন। তবে পুলিশ আপাতত সাইবার ক্রাইম অপরাধে মাহির দায়ের করা মামলার তদন্ত করছে। সেখানে শাওন ছবি পোস্ট করে যে অপরাধ করেছেন তার প্রমাণ এরইমধ্যে পাওয়া গেছে।

এদিকে আদালতে চিত্র নায়িকা মাহির মামলায় গ্রেপ্তার শাহরিয়ার ইসলাম ওরফে শাওন লিখিতভাবে বলেছেন, শারমিন আক্তার নীপা (মাহিয়া মাহি) তার স্ত্রী। বিয়ের অনুষ্ঠানের ছবি প্রকাশ করা হয়েছে, যা কোনো মানহানিকর, অশ্লীল ও উস্কানিমূলক নয়। অবশ্য এর আগে তথ্য ও যোগাযোগপ্রযুক্তি আইনের অপরাধে মাহির দায়ের করা মামলায় গোয়েন্দা পুলিশ শাওনকে গ্রেপ্তার করে তাকে দুদিনের রিমান্ডে নেয়। স্ট্যামফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিকেশন্স বিভাগের এ ছাত্র আদালতে তাদের বিয়ের কাবিননামা দাখিল করেছেন।






মন্তব্য চালু নেই