মেইন ম্যেনু

প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ বিমানে কী কী থাকে, জানলে আপনি ও চমকে যাবেন!

যে বিশেষ বিমানে প্রধানমন্ত্রী বিদেশে যাতায়াত করেন, তাতে কী কী থাকে? এমন আগ্রহ সবার থাকটাই স্বাভাবিক। কিন্তু নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে সব ধরণের তথ্য প্রকাশ করা হয় না। যেটুকু জানা গিয়েছে, ঠিক সেটুকুই আপনাদের সামনে তুলে ধারা হলো।

ভারতের রাষ্ট্রপতি বা প্রধানমন্ত্রী যে বিমানে যাতায়াত করেন, সেই বিমানটিকে ‘এয়ার ইন্ডিয়া ওয়ান’ নামেই বলা হয়ে থাকে। তবে বিমানটি যদিও ‘এয়ার ইন্ডিয়া’র হয়ে থাকে, সেটি অপারেট করে ভারতীয় বিমানবাহিনী।

এয়ার ইন্ডিয়ার মোট পাঁচটি বোয়িং ৭৪৭-৪০০ বিমান রয়েছে। রাষ্ট্রপতি বা প্রধানমন্ত্রীর বিদেশসফরে এর একটি ব্যবহার করা হয়ে থাকে।

এই বিমানে একটি স্যুইট থাকে। পৃথক বেডরুম, একটি লাউঞ্জ, ছ’আসনের একটি অফিস এবং একটি স্যাটালাইট ফোনও থাকে।

এয়ার ইন্ডিয়ার ৮জন বিশেষ পাইলটের প্যানেল রয়েছে এই বিমানের জন্য। তাদের মধ্যে থেকে দু’জন বিমানচালনার দায়িত্বে থাকেন। কিন্তু আরো অন্তত চারজন পাইলটকে প্রস্তুত রাখা হয়। স্পেশাল প্রোটেকশন গ্রুপ সর্বক্ষণ এই বিমানের যন্ত্রাংশের নজরদারি চালায়।

অনেক ক্ষেত্রেই রাষ্ট্রপতি, উপরাষ্ট্রপতি বা প্রধানমন্ত্রীর ইচ্ছায় বিমানের রুট বদলাতে হতে পারে। উপরাষ্ট্রপতি হামিদ আনসারি নাকি একবার ‘পামির টপ’-এর (যা ‘পৃথিবীর ছাদ’ নামে সুপরিচিত) উপর দিয়ে যেতে চেয়েছিলেন। আফগানিস্তান সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করে পাইলট উপরাষ্ট্রপতির ইচ্ছার মর্যাদা রাখেন।

অনেক ক্ষেত্রে প্রধান যাত্রীর সফরসঙ্গীরা ককপিটেও চলে যান। শোনা যায়, ককপিটে যায়ার অভিজ্ঞতা রয়েছে সীতারাম ইয়েচুরি, ফারুক আবদুল্লার মতো নেতাদেরও।

আরো একটি তথ্য দেয়া যাক। এই বিমানের ভিতরে ধূমপান পর্যন্ত করা যায়। বিমানের পিছন দিকে তার জন্য পৃথক ব্যবস্থা রয়েছে বলে শোনা যায়।-এবেলা






মন্তব্য চালু নেই