মেইন ম্যেনু

প্রাইভেট পড়ানোর কথা বলে বাগানে ডেকে নিয়ে ৩ বছরের শিশুকে ধর্ষণ

কে.এম জাহেদ: শহরের মধ্যম রামপুর এলাকায় সাড়ে ৩ বছরের এক মেয়ে শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছে। এ ঘটনায় ধর্ষক মেহেদী হাসানকে আটক করেছে পুলিশ।

শিশুটির পরিবার জানায়, শনিবার বিকেলে ধর্ষক মেহেদী হাসান শিশুটিকে প্রাইভেট পড়ানোর কথা বলে বাড়ির পাশে একটি জঙ্গলে ডেকে নিয়ে যায়। সেখানে মেয়েটিকে ধর্ষণ করে ফেলে রেখে চলে আসলে কিছুক্ষণ পর শিশুটির মা শিশুটিকে খুঁজতে থাকে। একপর্যায়ে ওই জঙ্গল থেকে তাকে গুরুতর অবস্থায় উদ্ধার করে ফেনী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

খবর পেয়ে পুলিশ ধর্ষক মেহেদী হাসানকে তার বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করে। ধর্ষক মেহেদী হাসান ফেনীর আল জামেয়াতুল ফালাহিয়া কামিল মাদরাসার ৭ম শ্রেণির ছাত্র ও ফেনী শহরের মধ্যম রামপুরের স্থায়ী বাসিন্দা।

শিশুর চাচা আনোয়ার হোসেন জানান, ধর্ষক মেহেদীর যেন দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হয়। আইনের ফাঁক-ফোকরে এ ধরনের নরপশুরা যেন পার না পায়। আর তা না হলে এ ধরনের কর্মকাণ্ড দিন দিন বৃদ্ধি পাবে।

ফেনী সদর হাসপাতালের শিশু ও গাইনি বিশেষজ্ঞ ডা. তাহমিনা সুলতানা নিলু জানান, শিশুটিকে ধর্ষণের ফলে তার প্রচুর রক্তক্ষরণ হয়েছে। তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে। বর্তমানে তার অবস্থা আশঙ্কাজনক।

ফেনী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি-তদন্ত) মো. শাহীনুজ্জমান জিানান, এ ঘটনায় ভিকটিমের বাবা বাদী হয়ে ফেনী মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই