মেইন ম্যেনু

প্রেমিকের মৃত্যুতে প্রেমিকারও আত্নহত্যা!

শুক্রবার দুপুরে কিছু সময়ের ব্যবধানে প্রেমিক ও প্রেমিকার মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। এ নিয়ে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। রাজশাহীতে সড়ক দুর্ঘটনায় প্রেমিকের মৃত্যুর সংবাদ শুনে প্রেমিকা আত্মহত্যা করেছে। সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত প্রেমিকের নাম তূর্য হোসেন। সে নগরীর ২৯ নম্বর ওর্য়াডের সাবেক কাউন্সিলর জেহের হোসেন সুজার ছেলে। তার মৃত্যুর খবর শুনে প্রেমিকার কেয়া খাতুন আতœহত্যা করে ।

সে নগরীর ডাসমারীর আব্দুল মান্নানের মেয়ে। নিজ বাড়িতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা করলে পরিবারের লোকজন আচ করতে পেরে কেয়াকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্ত বিকেল তিনটার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় কেয়া মারা যায়। এই ঘটনার বিষয়টি নিশ্চত করেছেন নগরীর মতিহার থানার ওসি হুমায়ুন কবির। শুক্রবার দুপুর পৌনে একটার দিকে তূর্য মোটরসাইকেলযোগে বিনোদপুর বাজার থেকে বাড়িতে ফিরছিল। এসময় ইটবাহী একটি ট্রলির ধাক্কায় তূর্য গুরুতর আহত হয়।

পরে স্থানীয়রা তাকে দ্রুত উদ্ধার করে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখান থেকে তাকে হাসপাতালের ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে নেওয়া হলে দুপুর আড়াইটার দিকে তূর্য মারা যায়। অপরদিকে তূর্যেরমৃত্যুর খবর শুনে তার প্রেমিকা কেয়া খাতুন নিজ শয়নকক্ষে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। পরে দ্রুত প্ররিবারের লোকজন তাকে উদ্ধার করে রামেক হাসপাতালে নিয়ে আসসার পর কেয়াও শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করে।






মন্তব্য চালু নেই