মেইন ম্যেনু

ফরিদপুরে এলজিইডি প্রধানের বিভিন্ন প্রকল্প পরিদর্শন

বাংলাদেশ এলজিইডি’র প্রধান প্রকৌশলী শ্যামা প্রসাদ অধিকারী গত শনিবার এলজিইডি’র আওতায় বাস্তবায়িত ও বাস্তবায়নাধীন ফরিদপুর জেলার বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক কাজ পরিদর্শন করেছেন। তিনি এ সময় ফরিদপুর সদর, মধুখালী, বোয়ালমারী ও আলফাডাঙ্গা উপজেলার বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক কাজ পরিদর্শন করেন।

এ ব্যাপারে প্রধান প্রকৌশলী জনাব শ্যামা প্রসাদ অধিকারী জানান যে, বিগত ৫/৬ বছর বৃহত্তর ফরিদপুরসহ সারাদেশে এলজিইডি’র মাধ্যমে ব্যাপক গ্রামীন অবকাঠামোর উন্নয়ন হয়েছে। বর্তমানে তারই ধারাবাহিকতা রক্ষার্থে আরো বেশী উন্নয়ন করার জন্য বৃহত্তর ফরিদপুর জেলার আগামী বৎসরের বরাদ্দ এ বছরের বরাদ্দের প্রায় দুই গুন করা হয়েছে।

বৃহত্তর ফরিদপুর গ্রামীন অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্প-১ ও বৃহত্তর ফরিদপুর গ্রামীন অবকাঠামো উন্নয়ন প্রকল্প-২ এর প্রকল্প ব্যয় প্রায় ৩ গুন বৃদ্ধি করে যথাক্রমে ১৭১০কোটি টাকা ও ১৪৯০কোটি টাকা সংশোধিত আকারে একনেক কর্তৃক অনুমোদিত হয়েছে। ফরিদপুর সদর উপজেলার প্রায় ১৮.০০ কিলোমিটার এইচবিবি রাস্তা মেরামত এর নির্দেশ দেয়া হয়েছে। ফরিদপুর সদর উপজেলার প্রস্তাবিত ৪টা ব্রীজের মধ্যে ২টি ব্রীজ এর জরিপ কাজ চলছে, এবছরই কাজ আরম্ভ হবে এবং অবশিষ্ট ২টি ব্রীজ নির্মানের ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

ফরিদপুর জেলার প্রবেশদ্বার অর্থাৎ রাজবাড়ী রাস্তার মোড়ে প্রায় ৮০.০০ লক্ষ টাকা ব্যয়ে বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্যসহ যুদ্ধরত মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতিকৃতি সম্বলিত একটি ড্যান্সিং ফোয়ারা নির্মাণ করা হবে। যাতে করে হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী, দেশের শ্রেষ্ট সন্তান, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে আমাদের আগামী প্রজন্ম জানতে পারে।

প্রধান প্রকৌশলী আরও জানান যে, আমি আমার অধিদপ্তরের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীদের ইতোমধ্যে নির্দেশ দিয়েছি কোন খারাপ কাজের বিপরীতে কোন বিল প্রদান করা যাবে না। এমনকি কোন খারাপ কাজ গ্রহন করা হবে না। পরিদর্শনকালে উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য আব্দুর রহমান, ফরিদপুর এলজিইডির প্রধান প্রকৌশলী মোঃ নূর হোসেন ভুইয়াঁসহ প্রমুখ।






মন্তব্য চালু নেই