মেইন ম্যেনু

ফেসবুকে মৃত ভাইয়ের উদ্দেশে খোলা চিঠি ভাইরাল!

‘তোর মৃত্যুর জন্য কে দায়ী? ভাগ্য, টাকা, ক্ষমতা, নাকি মনুষ্যত্ব? আকাশের ঐ তারার মাঝে তোকে খুঁজে ফিরি, কোন তারাটা তুই। ’ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেববুক স্টাটাসে এ কথাগুলো লিখেছেন লালমনিরহাট জেলার হাতীবান্ধা উপজেলায় বিদ্যুৎ অফিসের অবহেলার কারণে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে চারজনের মৃত্যুর ঘটনায় নিহত মিল্টনের চাচাতো ভাই হাসান রাজিব। তার মতো অনেকেই বিভিন্ন মত প্রকাশ করে দায়ী করেছে বিদ্যুৎ অফিসকে।

হাসান রাজিবের ফেসবুক স্টাটাস যা ছিল-

ভাই তোর উদ্দেশ্যে খোলা চিঠি,!!! না ফেরার দেশে কেমন আছিস জানি না। তবে তোর এই শহীদি মৃত্যু বলছে তুই ভাল আছিস। জানিস তুই ছাড়া আমাদের যেন সব কিছুই থেমে গেছে। মা এখনো তোর কথা ভেবে জ্ঞান হারায়। আব্বু কান্না করে, মামুন ভাই আড়ালে চোখ লুকায়, জবা আপার করুণ চাহনি, বড় আব্বুর আহজারী, আমরা কেউই ভাল নেই। আকাশের ঐ তারার মাঝে তোকে খুঁজে ফিরি, কোন তারাটা তুই। আমি মানসিকভাবে খুবই শক্ত ছিলাম। কিন্তু তোর মৃত্যু আমি কোনভাবেই মেনে নিতে পারছি না। তোর মৃত্যুর জন্য কাকে দায়ী করব? তোর ভাগ্য, টাকা ক্ষমতা, নাকি মনুষ্যত্ব? হাতীবান্ধার সব বিবেক টাকার কাছে পরাজিত! তোর মৃত্যুর জন্য বিচার চাইব কার কাছে, সবাই বিক্রিত মাল! তোর মৃত্যু আমাকে অনেক কিছুই শিখিয়ে দিল। আল্লাহর দরবারে মোনাজাত থাকলো। আল্লাহ আমার ভাইটিকে জান্নাত নসীব করো।

ইতি

তোর পরিবারবর্গ।

প্রসঙ্গত, গত বুধবার (৫ এপ্রিল) সকালে হাতীবান্ধা উপজেলার ভেলাগুড়ি গ্রামে বিদ্যুতের ছেঁড়া তার সংযোগ দিতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ৪ জন মারা যান। এ ঘটনায় জেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আমিনুর রহমানকে প্রধান করে ৪ সদস্যের একটি তদন্ত টিম গঠন করে জেলা প্রশাসন। তারা ১১ এপ্রিল ঘটনাস্থল পরিদর্শনসহ নিহতের পরিবার ও প্রত্যক্ষদর্শীদের সাথে কথা বলেছেন। তবে তারা এখনও তাদের তদন্ত প্রতিবেদন জেলা প্রশাসনের কাছে হস্তান্তর করেননি।






মন্তব্য চালু নেই