মেইন ম্যেনু

ফেসবুকে ‘লাইক’ না দিলে বাড়ি ছাড়তে হবে!

বাড়িভাড়া বাড়ানোসহ নানা ইস্যুতে বাড়িওয়ালা-ভাড়াটে সম্পর্কের টানাপোড়েনের গল্প নতুন কিছু নয়। তবে যুক্তরাষ্ট্রের উটাহ অঙ্গরাজ্যের সল্ট লেক সিটির একটি অ্যাপার্টমেন্টের ভাড়াটেদের ওপর মালিকপক্ষ এমন এক শর্ত চাপিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করেছে, যা বেশ অদ্ভুত।

সম্প্রতি সল্ট লেক সিটিতে অবস্থিত ওই সিটি পার্ক অ্যাপার্টমেন্টটির দরজায় ঝুলিয়ে দেওয়া নোটিশে বলা হয়েছে, পাঁচ দিনের মধ্যে অ্যাপার্টমেন্ট কমপ্লেক্সের ফেসবুক পেজে ‘লাইক’ না দিলে তা বাড়িভাড়ার চুক্তির শর্তভঙ্গ বলে গণ্য হবে। তার মানে লাইক না দিলে ভাড়াটেদের বাড়ি ছাড়তে হবে।

সিটি পার্ক অ্যাপার্টমেন্টটির বাসিন্দাদের অভিযোগ, অ্যাপার্টমেন্ট কমপ্লেক্সের মালিকপক্ষের টাঙিয়ে দেওয়া ওই নোটিশে বলা হয়েছে, কোম্পানির ফেসবুক পেজে ‘লাইক’ দেওয়ার শর্তটি বাড়িভাড়া-সংক্রান্ত চুক্তিতে নতুন সংযোজন। শুধু তা-ই নয়, শর্তে ওই ফেসবুক পেজে ভাড়াটে ও অ্যাপার্টমেন্টে আসা অতিথিদের ছবিও পোস্ট করার কথা বলা হয়।

এমন শর্তে ভাড়াটেরাও ক্ষুব্ধ। ভাড়াটে জেসন রিং বলেন, ‘জোর করে কারও বন্ধু হতে এবং তা না মানলে হুমকি পেতে রাজি নই আমি।’

ভাড়াটেদের অধিকার রক্ষায় সোচ্চার স্থানীয় আইনজীবী জাখারি মায়েরসও। তিনি বলেছেন, ‘ভাড়াটেদের ওপর এ ধরনের শর্ত চাপিয়ে দেওয়ার বিষয়টি আইনত বৈধ কি না, সে বিষয়ে আমি নিশ্চিত নই। তবে বয়স্ক ও অক্ষম ব্যক্তি, যাঁরা ফেসবুক ব্যবহার করতে পারেন না বা করেন না, তাঁদের জন্য এ ধরনের শর্ত অবশ্যই বৈষম্যের শামিল।’

তবে সমালোচনা আর ভাড়াটেদের প্রতিবাদের মুখে শেষ পর্যন্ত বোধোদয় হয়েছে মালিকপক্ষের। বিষয়টি জানাজানির পর কটূক্তিকর মন্তব্যে ভেসে যায় অ্যাপার্টমেন্ট কমপ্লেক্সের ফেসবুক পেজ। ফলে নোটিশ প্রত্যাহার করে ক্ষমা চাইতে বাধ্য হয় মালিকপক্ষ। সেই সঙ্গে ফেসবুক পেজটি সাময়িক সময়ের জন্য বন্ধ করে দেওয়া হয়।






মন্তব্য চালু নেই