মেইন ম্যেনু

ফোন রিসিভ না করায় স্ত্রীর নাক কাটলো স্বামী!

রাগের বশে মানুষ কত রকম অঘটনই না ঘটায়। কিন্তু তাই বলে নিজের স্ত্রীর নাক কেটে তা গিলে খাওয়ার কথা কে কবে শুনেছেন। শুনতে আশ্চর্য মনে হলেও এমন ঘটনা সত্যিই ঘটেছে। সম্প্রতি চীনে মিসেস ইয়াং নামে এক নারী তার স্বামীর ফোন রিসিভ করতে পারেন নি বলে রাগান্বিত স্বামী ওই স্ত্রীর নাক কেটে তা গিলে খেয়েছেন।

ওই নারী জানিয়েছেন, রাত দুইটার দিকে তার স্বামী তাকে ফোন করেছিলেন। কিন্তু তিনি ফোন রিসিভ করতে পারেন নি। পরদিন সকালে তার কর্মক্ষেত্রে গিয়ে তার স্বামী এই অদ্ভূত কাণ্ড ঘটান। এতে রীতিমত হতবাক হয়েছেন স্থানীয় লোকজন। ওই দুর্ঘটনার পর ইয়াংয়ের স্বামীকে খুঁজছে পুলিশ।

ইয়াং এবং তার স্বামী দু’জনেরই এটি ছিল দ্বিতীয় বিয়ে। তাদের একটি সন্তান রয়েছে। কিন্তু তার স্বামী চাইতেন তাদের বাচ্চাটাকে বিক্রি করে দিতে। আর এ নিয়ে প্রায়ই তাদের মধ্যে ঝগড়া বিবাদ হতো। লোকটা খুব সন্দেহপ্রবন ছিলেন বলেও জানিয়েছেন ইয়াং। সে সারাদিন একটু পর পরই ইয়াংয়কে ফোন করত। তবে এটা স্ত্রীকে ভালবেসে নয় বরং সন্দেহ কাটাতেই। এমনটাই জানিয়েছেন ইয়াং।

নাক হারানোর পর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল ইয়াংকে। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, ইয়াংকে তার নাকের স্বাভাবিক অবস্থা ফিরে পিতে তিন মাস অপেক্ষা করতে হবে। চিকিৎসার পর তিনি ঠিক মত শ্বাস প্রশ্বাস নিতে পারবেন বলেও আশ্বস্ত করেছেন চিকিৎসকরা।






মন্তব্য চালু নেই