মেইন ম্যেনু

বইয়ের বদলে মিলল মদের বোতল

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রলীগের বহিষ্কৃত সভাপতি মিজানুর রহমান রানাসহ তার সহযোগীদের কক্ষ থেকে বিপুল পরিমাণ মদের খালি বোতল ও ককটেলসদৃশ বস্তু উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত হলের প্রাধ্যক্ষকে নিয়ে তল্লাশি করেন বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর তারিকুল হাসান। এ সময় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হলের ২২১ নম্বর কক্ষ থেকে মদের খালি বোতল ও ককটেলসদৃশ বস্তু উদ্ধার করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, গত শনিবার রাতে মিজানুর রহমান রানাকে সংগঠন থেকে বহিষ্কারের পরপরই সহযোগীদের নিয়ে তিনি হল ছেড়ে পালিয়ে যান। পরদিন রোববার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল কর্তৃপক্ষ ২২১, ২২২, ২২৪, ২৩২ ও ২৩৩ নম্বর কক্ষে তালা ঝুলিয়ে দেয়। হলের ২২১ নম্বর কক্ষে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সহসভাপতি মেহেদী হাসান থাকতেন বলে জানা গেছে।

প্রক্টর অধ্যাপক তারিকুল হাসান জানান, হলের ২২১ নম্বর কক্ষ থেকে বিপুল পরিমাণ মাদকদ্রব্যের খালি বোতল উদ্ধার করা হয়েছে। তবে কোনো অবৈধ অস্ত্র পাওয়া যায়নি।

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা আশা করেছিলাম তারা যেহেতু বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ছিল, সে জন্য তাদের রুম থেকে বইপত্র পাওয়া যাবে। কিন্তু তার কিছুই পাওয়া যায়নি। ছাত্রনেতাদের রুম থেকে মাদকের বোতল পাওয়া দুঃখজনক ও অপ্রত্যাশিত।’

বঙ্গবন্ধু হলের প্রাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মোহা. আশরাফ উজ জামান জানান, মদের কিছু পরিত্যক্ত বোতল ও ককটেলসদৃশ লালটেপ জড়ানো একটি বস্তু পাওয়া গেছে। অন্যান্য আসবাব তারা আগেই সরিয়ে নিয়ে গেছে।






মন্তব্য চালু নেই