মেইন ম্যেনু

বউয়ের ওজন ১২৮ কেজি; পিষ্ট হয়ে স্বামীর মৃত্যু!

এভাবেও মানুষের মৃত্যু হতে পারে? ডাক্তার থেকে শুরু করে আত্মীয়-স্বজনরাও বিশ্বাস করতে পারছেন না। কিন্তু ঘটনা শতভাগ সত্যি! সিঁড়ি দিয়ে ওঠার সময় পা পিছলে স্বামীর গায়ের ওপর পড়ে যান ১২৮ কেজি ওজনের স্ত্রী। গুরুতর আহত অবস্থায় তাদের হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও, দুজনেরই মৃত্যু হয়।

রাজকোটের পশ এলাকা কলাবাদের রামধাম সোসাইটির ঘটনা। বাড়ির একতলায় থাকতেন ৬৮ বছরের মঞ্জুলা ভিঠলানি ও তার স্বামী নটবরলাল। দোতলায় থাকতেন তাদের ছেলে আশিস ও তার স্ত্রী নিশা। সোমবার ভোর ৪টার সময় আশিসের শ্বাসকষ্ট হওয়ায় নিচতলায় ওষুধ নিতে গিয়েছিলেন নিশা। ছেলের কথা শুনে তাড়াহুড়ো করে দোতলায় যেতে সিঁড়িতে ওঠেন মঞ্জুলা ও তার স্বামী। তবে, ১২৮ কেজি ওজনের মঞ্জুলা পা পিছলে পড়ে যান। পিছনেই ছিলেন তার স্বামী। মঞ্জুলার শরীরের ওজনে একপ্রকার পিষ্ট হয়ে যান নটবরলাল। তার মাথায় গভীর আঘাত লাগে। দুজনকেই সঙ্গে সঙ্গে বেসরকারি হাসপাতালে ভর্তি করা হলেও, কারওকে বাঁচানো যায়নি।

শ্বশুর-শাশুড়িকে পড়ে যেতে দেখে দৌড়ে সেখানে যেতে গিয়ে পা পিছলে পড়ে যান নিশাও। পায়ে আঘাত নিয়ে তিনি এখন হাসপাতালে ভর্তি। পুলিশ জানিয়েছে, সব সময় ছেলের স্বাস্থ্য নিয়ে চিন্তায় থাকা বাবা-মা ছেলের অসুস্থতার খবর পেয়ে তাড়াহুড়ো করে সিঁড়ি দিয়ে উঠতে গিয়েই বিপত্তি ঘটে।






মন্তব্য চালু নেই