মেইন ম্যেনু

বর্তমানরা চান উন্নয়ন, নতুনরা চান আধুনিক শহর

হবিগঞ্জের ৫টি পৌরসভায় এখন প্রার্থীরা নিজ নিজ প্রতীক নিয়ে মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন। তারা নানাভাবে ভোটারদের মন জয় করার চেষ্টা করছেন।

জেলার হবিগঞ্জ, শায়েস্তাগঞ্জ, মাধবপুর, চুনারুঘাট ও নবীগঞ্জসহ ৫টি পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে ২১, কাউন্সিলর ১৮১ ও সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর পদে ৫৩ প্রার্থী রয়েছেন। এরমধ্যে বর্তমান মেয়র প্রার্থীরা বলছেন, উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চান।

এদিকে, নতুন মেয়র প্রার্থীরা বলছেন, সবকিছু বাদ দিয়ে তাদের ভোট দেয়ার জন্য। তারা পরিবেশবান্ধব আধুনিক শহর গড়ে তোলবেন। তবে মেয়র পদে মূল লড়াই হবে বিএনপি ও আওয়ামী লীগ প্রার্থীর মধ্যে। তারপরও জয়ের আশায় সব প্রার্থীই প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।

হবিগঞ্জ পৌর নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়র প্রার্থী মিজানুর রহমান মিজান শহরে ব্যাপক গণসংযোগ করছেন। দিনভর শহরে গণসংযোগ করছেন। তিনি বলেন, স্থানীয় ব্যবসায়ীরা তাকে সমর্থন করেন এবং ভোট দেয়ার অঙ্গীকার করেন। আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী আতাউর রহমান সেলিম বলেন, আধুনিক শহর গড়তে চাই। শহরের পুরনো দৃশ্য পাল্টাতে চাই।’

শায়েস্তাগঞ্জ পৌরসভায় আওয়ামী লীগ প্রার্থী ছালেক মিয়া বলেন, জয়ের ব্যাপারে আমি আশাবাদী। জয়ী হলে আধুনিক শহর সবাইকে উপহার দিতে চাই। বিএনপি প্রার্থী ফরিদ আহমেদ অলি বলেন, উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে তিনি আবারো মেয়র পদে প্রার্থী হয়েছেন।

চুনারুঘাট পৌরসভায় বিএনপি মনোনীত মেয়র প্রার্থী নাজিম উদ্দিন শামসু বলেন, উপ-নির্বাচনে জয়ী হয়ে ব্যাপক উন্নয়ন করেছেন। তাই এ নির্বাচনেও জয়ী হতে পারবেন। আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী সাইফুল আলম বলেন, গত নির্বাচনে সামান্য ভোটে তিনি হেরে যান। এবার তাকে জনগণ বিপুল ভোটে নির্বাচিত করবে। তিনি নির্বাচিত হয়ে আধুনিক পৌর শহর উপহার দেবেন।

মাধবপুর পৌরসভায় আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী হীরেন্দ্র লাল সাহা বলেন, জনগণ তাকে ভালবাসে। জনগণের ভালবাসাই নৌকা জয়ী হবে। বিএনপি মনোনীত প্রার্থী হাবিবুর রহমান মানিক বলেন, গত পৌর নির্বাচনে তিনি কিছু ভোটের ব্যবধানে হেরেছেন। এবার জনগণ তাকে ভোট দিয়ে মেয়রের আসনে বসাবে।

নবীগঞ্জ পৌরসভায় আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী অধ্যাপক তোফাজ্জল ইসলাম চৌধুরী বলেন, দীর্ঘসময় ধরে পৌরবাসীর সেবা করে আসছেন তিনি। নবীগঞ্জের তৃণমূল জনগণের প্রিয় প্রতীক নৌকা। তারা এ প্রতীককে জয়ী করতে কাজ করছেন। বিএনপি মনোনীত প্রার্থী ছাবির আহমেদ চৌধুরী বলেন, জনগণ আমাকে ভালবাসে বলেই মেয়র পদে প্রার্থী হয়েছি। আমি এ শহরটিকে আধুনিক শহর হিসেবে গড়ে তুলতে চাই।

হবিগঞ্জ জেলার নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ বেলায়েত হোসেন চৌধুরী জানান, নির্বাচন সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন করতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর একাধিক টিম মোতায়েন থাকবে।






মন্তব্য চালু নেই