মেইন ম্যেনু

বাংলাদেশের প্রশংসা করলেন বিশ্বব্যাংক প্রেসিডেন্ট

বিভিন্ন আর্থসামাজিক খাতে বাংলাদেশের দারুণ উন্নয়নের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন বিশ্বব্যাংকের প্রেসিডেন্ট ড. জং ইয়ং কিম। দারিদ্র্য বিমোচন ও নারীর ক্ষমতায়নে দেশটির অবস্থান দেখে নিজের সন্তুষ্টিও প্রকাশ করেছেন তিনি।

গতকাল মঙ্গলবার যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে এক বৈঠকে এসব কথা বলেন বিশ্বব্যাংক প্রেসিডেন্ট। তিনি বলেন, ‘যেকোনো অনুষ্ঠানে সবার সামনে আমি বাংলাদেশের বিভিন্ন সাফল্যের কথা তুলে ধরি।’

বার্তা সংস্থা ইউএনবি জানিয়েছে, বৈঠক শেষে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের এসব কথা জানান।

বৈঠকে শেখ হাসিনাকে জং ইয়ং কিম বলেন, তাঁর সংস্থা বাংলাদেশের জন্য সহযোগিতা অব্যাহত রাখবে। এ ছাড়া সামনের মাসে বাংলাদেশ সফরে আসবেন বলেও জানান তিনি।

যখন কোনো দেশ বা উন্নয়ন সংস্থা বাংলাদেশের জন্য উন্নয়ন প্রকল্প হাতে নেয়, তখন সে বিষয়ে সরকারের সঙ্গে আলোচনা করে নেওয়ার ওপর গুরুত্বারোপ করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘আমরা আমাদের প্রয়োজনগুলো জানি। যখন বাংলাদেশের জন্য কোনো কোনো প্রকল্প বা পরিকল্পনা হাতে নেওয়া হয়, তখন উচিত বাংলাদেশ সরকারের সঙ্গে আলোচনা করে নেওয়া।’

বর্তমান সরকারের বিভিন্ন সাফল্যের কথা বর্ণনা করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, তাঁর সরকার জ্বালানি খান ও নদী খননকে অগ্রাধিকার দিচ্ছে। এ ছাড়া নারীর ক্ষমতায়ন ও শিক্ষা খাতে সরকারের সাফল্যের কথাও তুলে ধরেন তিনি।

সরকারের নেওয়া নানা পদক্ষেপের কারণে বাংলাদেশের রাজনীতিতে নারীর অংশগ্রহণ বাড়ছে বলেও মন্তব্য করেন শেখ হাসিনা। এ ছাড়া দেশের প্রশাসন, বিচার বিভাগ, সশস্ত্র বাহিনী, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, শিক্ষাসহ বিভিন্ন খাতে উচ্চ পর্যায়ে নারীরা কাজ করছেন বলে বিশ্বব্যাংক প্রেসিডেন্টকে জানান তিনি।

জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭১তম অধিবেশনে যোগ দিতে গত রোববার যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কে পৌঁছান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দুদিনের ওয়াশিংটন সফর শেষে ২৫ সেপ্টেম্বর শেখ হাসিনা ঢাকার উদ্দেশে যুক্তরাষ্ট্র ত্যাগ করবেন।






মন্তব্য চালু নেই