মেইন ম্যেনু

বাংলাদেশ-কুয়েত ৪ চুক্তি সই

বাংলাদেশ ও কুয়েতের মধ্যে তিনটি চুক্তি ও একটি স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। বুধবার বিকাল সোয়া তিনটার দিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে এই চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়। উন্নয়ন সহযোগিতামূলক এসব চুক্তিতে বাংলাদেশ ও কুয়েতের সংশ্লিষ্ট মন্ত্রীরা সই করেন। এসময় বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও কুয়েতের প্রধানমন্ত্রী শেখ জাবের আল সাবাহ উপস্থিত ছিলেন।

বিনিয়োগ উন্নয়ন ও সুরক্ষা চুক্তিতে সই করেন বাংলাদেশের শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু এবং কুয়েতের শিক্ষামন্ত্রী ড. বদর আহমদ আল ঈসা।

পরে কূটনৈতিক ও অফিসিয়াল পাসপোর্টধারীদের ভিসা সহজীকরণ সংক্রান্ত চুক্তি, সামরিক খাতে প্রশিক্ষণ ও অন্যান্য সহযোগিতা চুক্তি এবং ঋণ সহায়তা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।

এর আগে বিকাল তিনটার আগে কুয়েতের প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে প্রতিনিধি দলটি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পৌঁছান। সেখানে তাকে লাল গালিচা সংবর্ধনা দেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। এরপর প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের শিমুল হলে প্রায় ১৫ মিনিটের মতো একান্ত বৈঠক করেন।

দ্বি-পাক্ষিক বৈঠকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে ছিলেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ, পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল, প্রধানমন্ত্রীর বিদ্যুৎ ও জ্বালানি উপদেষ্টা তৌফিক ই এলাহী চৌধুরী, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব আবুল কালাম আজাদ, বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম প্রমুখ।

অন্যদিকে কুয়েতের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলেন দেশটির প্রথম উপ-প্রধানমন্ত্রী ও পররাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ সাবাহ খালেদ আল-হামাদ আল-সাবাহ, অর্থ ও তেলমন্ত্রী আনাস খালেদ আল-সাবাহ, শিক্ষামন্ত্রী ড. বদর হামাদ আল-ইসাসহ বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তারা।

দ্বি-পাক্ষিক বৈঠকের পর বাংলাদেশের পররাষ্ট্র সচিব সাংবাদিকদের জানান, বৈঠকে জঙ্গিবাদ, সন্ত্রাস ও মুসলিম বিশ্বের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় বাংলাদেশ ও কুয়ের একসঙ্গে কাজ করতে একমত হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই