মেইন ম্যেনু

বিএনপির যে সকল নেতাদের ঈদ কাটবে কারাগারে

বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির বেশ কয়েকজন সিনিয়র নেতার এবারের ঈদুল আজহা কাটবে কারাগারে। এর আগেও দলটির অনেক নেতার ঈদ কেটেছে কারাগারে।

২০১০ সালের পর থেকেই কারাগারে ঈদ কাটছে মানবতাবিরোধী অপরাধে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সালাহ উদ্দিন কাদের চৌধুরীর। আর এবারও কারাগারে ঈদ কাটবে তার। ২০১০ সালের ১৯ ডিসেম্বর মানবতাবিরোধী অপরাধ মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

দুর্ণীতির মামলায় দলের স্থায়ী কমিটির সদস্য খন্দকার মোশাররফ হোসেন রয়েছেন কারাগারে। বিদেশে টাকা পাচারের অভিযোগে দুদকের মামলায় তাকে ২০১৪ সালের ১২মার্চ গ্রেপ্তার করা হয়।

ভাইস চেয়ারম্যান আবদুস সালাম পিন্টুও রয়েছেন কারাগারে। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার মামলায় তাকে কারাগারে পাঠানো হয়। অন্যদিকে দশ ট্রাক অস্ত্র মামলায় সাজাভোগ করছেন সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী লুৎফুজ্জামান বাবর।

সরকারবিরোধী আন্দোলনকে কেন্দ্র করে আটক হওয়া নেতাদের মধ্যে কারাগারে আছেন যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ। ৩০ জানুয়ারি গুলশানের একটি বাসা থেকে রিজভী আহমেদকে আটক করে পুলিশ। পরে তাকে অবরোধে নাশকতার মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়।

এছাড়া সাবেক এমপি সৈয়দা আশিফা আশরাফী পাপিয়াও রয়েছেন কারাগারে। চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ও সম্প্রতি মেয়র পদ হারানো গাজীপুরের সাবেক মেয়র এমএ মান্নান রয়েছেন কারাগারে। গত ১১ ফেব্রুয়ারি রাতে অবরোধে গাজীপুরে বাসে পেট্রলবোমা হামলার মামলায় তাকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এছাড়াও সাবেক অর্থমন্ত্রী এ এস এম কিবরিয়া হত্যা মামলায় সিলেটের সাবেক মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীও রয়েছেন কারাগারে।






মন্তব্য চালু নেই