মেইন ম্যেনু

বিচারপতি মানিকের তথ্য চেয়ে ব্রিটিশ হাইকমিশনে আবেদন

অবসরপ্রাপ্ত আপিল বিভাগের বিচারপতি এএইচএম শামসুদ্দিন চৌধুরীর তথ্য চেয়ে ব্রিটিশ হাইকমিশনে আবেদন করেছেন সুপ্রিমকোর্টের এক আইনজীবী।

বৃহস্পতিবার সকালে রেজিস্ট্রার ডাকযোগে ব্রিটিশ হাইকমিশনার বরাবর আবেদনটি পাঠান আইনজীবী জুলফিকার আলী জুনু।

আবেদনের বিষয়ে আইনজীবী জুলফিকার আলী জুনু বলেন, ‘বিচারপতি শামসুদ্দিন চৌধুরী হাইকোর্ট বিভাগের বিচারপতি হওয়ার সময় উদ্দেশ্যমূলক কিছু তথ্য গোপন করে গিয়েছেন। এই বিষয়ে তদন্তের জন্য আমি বাংলাদেশের দুর্নীতি দমন কমিশনে আবেদন করেছি। আবেদনের মাধ্যমে আমি ব্রিটেনে শামসুদ্দিন চৌধুরীর মাইগ্রেশন স্ট্যাটাস সম্পর্কে জানতে চেয়েছি’।

আমি মনে করি, ব্রিটেনে শামসুদ্দিন চৌধুরীর মাইগ্রেশন তথ্যগুলো আমার পরবর্তী কার্যক্রমকে সাহায্য করবে। একই সাথে শামসুদ্দিন চৌধুরীর বিরুদ্ধে দুদকে যে অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে সে বিষয়ে একটি নিরপেক্ষ তদন্তের ক্ষেত্রেও এটি সহায়ক হবে।

উল্লেখ্য, এর আগে গতকাল একই আইনজীবী দুদকে শামসুদ্দিন চৌধুরীর বিরুদ্ধে তথ্য গোপনের অভিযোগ তদন্তের আবেদন করেন।

আইনজীবী দুদকে দায়েরকৃত আবেদনে অবসরপ্রাপ্ত এ বিচারপতির দ্বৈত নাগরিকত্ব রয়েছে বলে অভিযোগ করেন। কেননা, আইনের দৃষ্টিতে বাংলাদেশের বিচারপতি হওয়ার ক্ষেত্রে দ্বৈত নাগরিকত্ব অযোগ্যতা বলে বিবেচিত হয়।






মন্তব্য চালু নেই