মেইন ম্যেনু

বিদেশিদের বাংলা শেখাতে সফটওয়্যার

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে বিদেশিদের বাংলা ভাষা শেখার জন্য উদ্ভাবিত সফটওয়্যার ‘বিগিনিং বেঙ্গলি এ১’ এর উদ্বোধন করা হয়েছে।

শুক্রবার ( ৬ মে) রাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আধুনিক ভাষা ইনিস্টিটিউট মিলনায়তনে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে এটির উদ্বোধন করেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।

এই সফ্টওয়্যার এর মাধ্যমে বিদেশিরা ভাষা শেখার চারটি ধাপ পড়া, শোনা, বলা ও লেখার দক্ষতা অর্জন করতে পারবে। আধুনিক ভাষা ইনিস্টিটিউট এর সহকারী অধ্যাপক রুপা চক্রবর্তীর ‘স্পোকেন বেঙ্গলি’ এর অনুসরণে এটি তৈরি করা হয়।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ইনিস্টিটিউট এর পরিচালক অধ্যাপক ইফফাত আরা নাসরিন মজিদের সভাপতিত্বে বিশেষ অতিথি ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আরেফিন সিদ্দিক, অ্যামিরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান ও শিক্ষা সচিব সোহরাব হোসেন।

তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু বলেন, ‘এই সফটওয়্যারের মধ্য দিয়ে বিদেশিদের বাংলা ভাষার শিখার উপকরণ সৃষ্টি হল। প্রথিবীর ১১টি বহুল প্রচলিত ভাষার মধ্যে বাংলা অন্যতম ভাষা। যে ভাষার ইতিহাস রক্তে রঞ্জিত। পৃথিবীর প্রায় ৩০ কোটি মানুষ বাংলা ভাষায় কথা বলে যাদের আত্মিক রাজধানী হলো ঢাকা। আর তা বাঙালি জাতীয়তাবাদ গঠনে ভূমিকা রেখেছে।’

মন্ত্রী বলেন, ‘এই সফটওয়্যার বিদেশি ছাড়াও বাংলাদেশের মধ্যে যারা আদিভাষী ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী আছে তাদের ও বাংলাভাষা শিখতে কাজে লাগবে।’

অধ্যাপক আরেফিন সিদ্দিক বলেন, ‘ভাষা শহীদদের অবদানের কারণে আজকে বাংলা ভাষা এই পর্যন্ত এসেছে। আমরা নিজের ভাষাকে সবচেয়ে কম গুরুত্ব দেই। বিশ্ববিদ্যালয় সীমিত সুযোগের মধ্যেও বিদেশিদের জন্য বাংলা ভাষা শেখার ব্যবস্থা করেছে। আর এই সফটওয়্যার বিদেশি ছাড়াও যে নতুন প্রজন্ম পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বেড়ে উঠছে তাদের কাজে দেবে।’

অধ্যাপক আনিসুজ্জামান বলেন, ‘বিদেশিদের বাংলা ভাষা শিখার প্রতিকূলতা দূরীকরণে এই সফটওয়্যার সহায়ক হবে।’

শিক্ষা সচিব সোহরাব হোসেন বলেন, ‘বাংলাদেশ এগিয়ে চলছে। বর্তমানে পৃথিবীর অনেক দেশের সাথে ইংরেজি জানা সত্ত্বেও তৃতীয় পক্ষের মাধ্যমে অনুবাদ করে কথা বলতে হয়। দেশ যখন মধ্য আয়ের দেশে পরিণত হবে তখন অন্যান্য দেশেও আমাদের ভাষা অনুবাদ করে কথা বলা হবে।’

অনুষ্ঠানে বিদেশি শিক্ষার্থীরা বাংলা ভাষায় গান পরিবেশন করেন।






মন্তব্য চালু নেই