মেইন ম্যেনু

চাকরির প্রলোভনে প্রতারণা

বিমানবাহিনীর সাবেক ২ সদস্যসহ আটক ৪

বিমানবাহিনীতে চাকুরীর প্রলোভন দেখিয়ে অর্থ প্রতারণার অভিযোগে বিমানবাহিনীর সাবেক দুই সদস্যসহ ৪ জনকে গ্রেপ্তার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। এসময় তাদের কাছ থেকে বিভিন্ন কলেজের প্রভাষক, হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক, উপজেলা সরকারি গেজেটেড কর্মকর্তা, সরকারি ডাক্তার, ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৫০টি সিল, ৪৬টি একশত টাকার ননজুডিসিয়াল স্টাম্প ও নিকাহনামা, ৬০টি এমওডিসি (মিনিস্ট্রি অব ডিফেন্স কনস্টেবল) পদে চাকরির আবেদন ফরম ও বিভিন্ন প্রার্থীর ৫২টি মেডিকেল রিপোর্টের নথি উদ্ধার করা হয়।

গত সোমবার রাতে তাদেরকে রাজধানীর পল্লবী থানাধীন ডিওএইচএস এলাকা থেকে তাদেরকে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন বিমানবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত ওয়ারেন্ট অফিসার মো. সিদ্দিকুর রহমান, অবসরপ্রাপ্ত সিভিল স্টাফ মো. জহিরুল ইসলাম এবং তাদের সহযোগী মো. স্বপন হোসেন ও মো. এনামুল হক লিটন।

এ সময় তাদের হেফাজত হতে ৪৬ জন ভিকটিমকেও উদ্ধার করা হয়।

ডিবি’র (উত্তর) ডিসি শেখ নাজমুল আলম জানান, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেপ্তারকৃতদের মধ্যে মো. জহিরুল ইসলাম ও মো. সিদ্দিকুর রহমান স্বীকার করেছেন যে তারা বিমান বাহিনীর অফিসার পরিচয় দিয়ে বিভিন্ন জেলা থেকে বেকার যুবকদের চাকরির প্রলোভন দেখান। ইতোমধ্যে বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর এমওডিসি ও সৈনিক পদে ৬ লাখ টাকার বিনিময়ে চাকরি দেয়ার লোভ দেখিয়ে প্রার্থী মো. সাইদুর রহমানসহ ৪৫ জনকে ঢাকায় নিয়ে এসে পল্লবী থানার মিরপুর ডিওএইচএস এর ৯নং রোডের একটি বাড়িতে আটকে রাখে। প্রতারক চক্র তাদের প্রত্যেকের কাছ থেকে একশত টাকার ননজুডিসিয়াল স্টাম্পে ও স্বতন্ত্র নিকাহনামায় স্বাক্ষর নেয় যেন পরবর্তীতে চাহিদা মত টাকা না পেলে প্রতারণার মাধ্যমে অর্থ আদায় এবং ব্যর্থতায় ব্ল্যাংক নিকাহনামা পূরণ করে অন্য কোনো নারীর দ্বারা নারী নির্যাতনের মিথ্যা মামলা রুজু করে বিপাকে ফেলতে পারে।






মন্তব্য চালু নেই