মেইন ম্যেনু

বিশ্বকাপ ২০১৮ বাছাই: দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চল

বিশ্বকাপ বাছাই শুরু তারকাদের ছাড়াই

আর্জেন্টিনার লিওনেল মেসি, ব্রাজিলের নেইমার, উরুগুয়ের লুইস সুয়ারেজ ও এডিনসন কাভানি এবং কলম্বিয়ার হামেস রদ্রিগেজ- এই পাঁচ তারকাকে ছাড়াই বৃহস্পতিবার থেকে শুরু হচ্ছে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চলের লড়াই। বাছাই পর্বের প্রথম দিন বৃহস্পতিবার (বাংলাদেশ সময় শুক্রবার ভোর) মাঠে নামবে ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, উরুগুয়ে, চিলি ও কলম্বিয়ার মতো বড় দলগুলো।

বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের দক্ষিণ আমেরিকা অঞ্চলের প্রথম ম্যাচে ব্রাজিল খেলবে চিলির বিপক্ষে, আর আর্জেন্টিনার প্রতিপক্ষ ইকুয়েডর। অন্যদিকে কলম্বিয়া খেলবে পেরুর বিপক্ষে, আর উরুগুয়ের প্রতিপক্ষ বলিভিয়া।

লিওনেল মেসি, নেইমার, সুয়ারেজ ও হামেস রদ্রিগেজ সময়ের সেরা খেলোয়াড়দের অন্যতম তাতে কোনো সন্দেহ নেই। ইনজুরির কারণে মেসি ও রদ্রিগেজস বাছাই পর্বের প্রথম ম্যাচে খেলতে পারবেন না। মেসি তো নভেম্বরের শেষ সপ্তাহের আগেই মাঠে ফিরতে পারবেন না।

অন্যদিকে নিষেধাজ্ঞার কারণে নেইমার, সুয়ারেজ ও কাভানি খেলতে পারবেন না। ইকুয়েডরের বিপক্ষে মেসির অভাব পূরণ করার জন্য আর্জেন্টিনা দলে তারকার অভাব নেই। আগুয়েরো, ডি মারিয়া, হিগুয়াইন জ্বলে উঠলেই সমস্যায় পড়ার কথা নয় দুবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নদের।

ব্রাজিলের হয়ে নেইমারের অভাব পূরণ করতে পারেন রিকার্ডো কাকা। তবে সুয়ারেজ ও এডিনসন কাভানির মতো দলের দুই সেরা তারকার অভাব পূরণ করতে বেশ হিমশিম খেতে হতে পারে উরুগুয়ের।

গত সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে স্প্যানিশ লা লিগায় নবাগত দল লাস পালমাসের বিপক্ষে খেলার শুরুতে হাঁটুতে চোট পান মেসি। এই চোটের কারণে সাত থেকে আট সপ্তাহ মাঠের বাইরে থাকতে হবে চারবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী এই তারকাকে। ৮ ও ১৩ অক্টোবর ইকুয়েডর ও প্যারাগুয়ের বিপক্ষে তো বটেই, নভেম্বরের মাঝামাঝিতে ব্রাজিল ও কলম্বিয়ার বিপক্ষের দুটি বাছাই পর্বের ম্যাচেও মেসির খেলা অনিশ্চিত।

অন্যদিকে গেল মাসে কলম্বিয়ার হয়ে প্রীতি ম্যাচ খেলতে গিয়ে ঊরুর চোটে পড়েন রিয়াল মাদ্রিদের মিডফিল্ডার হামেস রদ্রিগেজ। সেই থেকেই মাঠের বাইরে রয়েছেন তিনি। বৃহস্পতিবার পেরুর বিপক্ষে তার খেলার সম্ভাবনা নেই বললেই চলে।

গত বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্বের ম্যাচে ইতালির ডিফেন্ডার জর্জো কিয়েলানিকে কামড় দেয়ার অপরাধে নয় ম্যাচের নিষিদ্ধ হন উরুগুয়ের বার্সেলোনা স্ট্রাইকার লুইস সুয়ারেজ। তাই আগামী বছরের মার্চের আগে জাতীয় দলের হয়ে প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচে ফিরতে পারবেন না তিনি।

গত জুলাইয়ে কোপা আমেরিকার গ্রুপ পর্বের ম্যাচে কলম্বিয়ার বিপক্ষে হেরে যাওয়ার পর ম্যাচ শেষে অখেলোয়াড়সুলভ আচরণ করে লাল কার্ড দেখেন নেইমার। সেই বিতর্কিত ঘটনার জন্য চার ম্যাচ নিষিদ্ধ হওয়া নেইমার চিলি ও ভেনেজুয়েলার বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচ দুটি মিস করবেন। তবে নভেম্বরে আর্জেন্টিনার বিপক্ষে মহাগুরুত্বপূর্ণ ম্যাচেই তাকে পাচ্ছেন কোচ দুঙ্গা।

অন্যদিকে কোপা আমেরিকার কোয়ার্টার-ফাইনালে চিলির গঞ্জালো হারাকে কনুই দিয়ে আঘাত করে দুই ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ হন উরুগুয়ের ফরোয়ার্ড এডিনসন কাভানি। ফলে বলিভিয়া ও কলম্বিয়ার বিপক্ষে বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের ম্যাচ দুটিতে খেলতে পারবেন না তিনি। নভেম্বরে ইকুয়েডরের বিপক্ষে তৃতীয় রাউন্ডের ম্যাচে ফিরবেন এই উরুগুয়ে স্ট্রাইকার।

নেইমার না থাকায় চিলির বিপক্ষে আজকের ম্যাচ কিছুটা পিছিয়ে থেকে শুরু করবে ব্রাজিল। যদিও দুই দলের মুখোমুখি সাক্ষাতে বেশ এগিয়ে পাঁচবারের বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা। ২০০২ বিশ্বকাপ বাছাই পর্বের চিলিয়ানদের কাছে ৩-০ গোলের অপ্রত্যাশিত হার নিয়ে মাঠ ছাড়ার পর ১৪ বারের সাক্ষাতে একবারও হারেনি সেলেসাওরা। এর পরের ১৪ বারের সাক্ষাতে ১২ বার জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে ব্রাজিল, অন্য দুটি ম্যাচ ড্র হয়েছে।

লিওনেল মেসির অনুপস্থিতিতে তার অভাব পূরণের দায়িত্ব মূলত সার্জিও আগুয়েরোর ওপর এসে পরেছে। ইকুয়েডরের বিপক্ষে এই সিটি তারকা মেসির ১০ নম্বর জার্সি পরে খেলবেন বলে জানিয়েছেন। দলের সেরা তারকা না থাকলেও আগামী ম্যাচ দুটিতে জেতার ব্যাপারে দারুণ আশাবাদী তিনি।






মন্তব্য চালু নেই