মেইন ম্যেনু

বিশ্ব রেকর্ড : ১ পাত্রের জন্য পাত্রী ১২৬ জন !

১২৬ জন পাত্রী উপস্থিত ছিলেন বিয়ের অনুষ্ঠানে। কিন্তু বেচারা পাত্র বিয়ে করলেন মাত্র একজনকে! এরপর অনুষ্ঠানও হলো বেশ জাঁকজমকভাবে। সম্প্রতি ঘটে যাওয়া শ্রীলঙ্কার এ ঘটনাটি বর্তমানে বিশ্বজুড়ে আলোচিত। তবে শুধুমাত্র রেকর্ড গড়াটাই নাকি ছিল এ বিয়ের উদ্দেশ্য।

পৃথিবীতে এবারই প্রথম এমন বিয়ের অনুষ্ঠানের আয়োজন করা  হলো। আর বিয়ের এ ঘটনাটি এতোটাই ব্যতিক্রম হয়ে উঠেছিল যে, শেষপর্যন্ত তা বিশ্ব রেকর্ড সৃষ্টি করে। রীতিমতো গিনেস বুক অব রেকর্ডসেও নাম লিখিয়ে নিয়েছে বিয়েটি।

জানা যায়, পাত্রের নাম নিশানসালা। পছন্দের ভাগ্যবতী পাত্রী হলেন নলিন। দুজনই শ্রীলঙ্কান। ৮ নভেম্বর শ্রীলঙ্কায় অনুষ্ঠিত হয় জাঁকজমকপূর্ণ এ বিয়ে। শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বো থেকে ৩০ কিমি দূরে আভেন্দ্রা গার্ডেন্সে অনুষ্ঠানটি সম্পন্ন হয়। পুরো অনুষ্ঠান ছিল খুবই আড়ম্বরপূর্ণ। সোনাখঁচিত বাহারি রঙের পোশাকের সাথে ঐতিহ্যবাহী অলঙ্কারে সেজে আসেন ১২৬ জন কনে। সবার হাতে ছিল ফুল। শেষে সবাইকে পিছনে ফেলে নিজ দেশের নলিনই হলেন সেই কাক্সিক্ষত পাত্র নিশানসালার জীবনসঙ্গিনী।

শ্রীলঙ্কার ফার্স্ট লেডি শ্রীরান্থি রাজাপাকশেও এ বিয়েতে হাজির হয়েছিলেন। এছাড়া অনুষ্ঠানটিতে বিখ্যাত ৩৫ জন ব্যক্তিত্ব উপস্থিত ছিলেন। শ্রীলঙ্কার বিয়ে পরিকল্পনাকারী ও পোশাক নকশাকারী চাম্পি শ্রীবর্ধনা বিশ্বরেকর্ড করার পরিকল্পনা থেকে এ বিয়ের আয়োজন করেন।

বিয়েতে সর্বাধিক সংখ্যক কনে উপস্থিত থাকার নতুন রেকর্ড হয় এটি। এর আগে একটি বিয়ের অনুষ্ঠানে সর্বোচ্চ ৯৬ জন কনে হাজির করে বিয়ের ঘটনাটি ছিল থাইল্যান্ডে। সূত্র : ইন্টারনেট






মন্তব্য চালু নেই