মেইন ম্যেনু

বিহারের উচ্চমাধ্যমিকে প্রথম হওয়া সেই রুবি রায় গ্রেফতার

ভারতের বিহার অঙ্গরাজ্যের উচ্চমাধ্যমিকের ফলে শীর্ষস্থান অর্জনকারী শিক্ষার্থী রুবি রায়কে গ্রেফতার করা হয়েছে। চলতি মাসের শুরুর দিকে প্রতারণার অভিযোগ আনা হয় এই শিক্ষার্থীর বিরুদ্ধে। ঘটনার তদেন্ত স্পেশাল টাস্ক ফোর্সের সদস্যরা বিহারের এই শিক্ষার্থীকে গ্রেফতার করেছে।

কলা অনুষদ থেকে শীর্ষস্থান অর্জনকারী রুবি রায় (১৭) দেশটির প্রভাবশালী সংবাদমাধ্যম এনডিটিভিকে বলেন, রাষ্ট্রবিজ্ঞানে রান্না শেখানো হয়। এরপর রায়সহ আরো কয়েক শীর্ষ শিক্ষার্থীর ফের পরীক্ষা নেয় স্থানীয় প্রশাসন।

বিজ্ঞান অনুষদ থেকে বিহারে শীর্ষস্থান অধিকারী আরেক শিক্ষার্থীর কাছে জানতে চাওয়া হয় পানি এবং এর সংকেত এইচ-২০’র মধ্যে সম্পর্ক কী? ওই শিক্ষার্থীও এর উত্তর দিতে পারেননি।

দ্বিতীয় দফায় পরীক্ষায় বসানো হয় রুবি রায়সহ অন্য শীর্ষ শিক্ষার্থীদের। পরে খাতা পর্যালোচনার পর তার ফল রুবি রায়ের ফল বাতিল করে।

এর আগে, চলতি বছরের উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার ফলে অসঙ্গতি সামনে এলে ৮ জুন চেয়ারম্যান পদ ছাড়েন লোকেশ্বর। এরপর লোকেশ্বর এবং তার স্ত্রী আত্মগোপন করেন। ১৫ জুন লোকেশ্বরকে আত্মসমর্পনের নির্দেশ দেন বিহারের একটি আদালত।

গত ২০ জুন অর্থের বিনিময়ে উচ্চ মাধ্যমিকের ফল জালিয়াতির অভিযোগে বিহার শিক্ষাবোর্ডের সাবেক চেয়ারম্যানকে গ্রেফতার করা হয়। ওইদিন উত্তরপ্রদেশের বারাণসী থেকে শিক্ষাবোর্ড চেয়ারম্যান লোকেশ্বর প্রসাদ সিং এবং তার স্ত্রী ঊষা সিংকে গ্রেফতার করে পুলিশ।






মন্তব্য চালু নেই