মেইন ম্যেনু

‘বৃষ্টিতে হাঁটবেন, নাকি দৌড়াবেন; জেনে নিন গবেষকেরা কী বলেন?

কোথাও যাচ্ছেন। হাতে ছাতা নেই, হঠাৎ বৃষ্টি। কী করবেন তখন? ধীরে-সুস্থে হেঁটে নিরাপদ ছাউনির নিচে যাবেন, নাকি একদৌড়ে যাবেন নিরাপদ আশ্রয়ে?

এই দৌড় দেওয়া আর না দেওয়া নিয়ে রয়েছে নানা জনের নানা মত। একদল বলেন, বৃষ্টিতে দৌড়ালে ভিজে যাওয়ার হার বেশি। একই সঙ্গে রাস্তায় জমে থাকা পানিও ছিটকে আসে শরীরে। তাই বৃষ্টিতে দৌড়াদৌড়ি না করাই সবচেয়ে ভালো। আবার আরেক দলের যুক্তি হলো, ধীরে ধীরে হাঁটলে তো বৃষ্টি কাবু করবেই, গা ছেড়ে দৌড় না দিলে কি বাঁচা যায় বৃষ্টি থেকে? গবেষকেরা কী বলেন এ নিয়ে?

এই তর্কের অবসান ঘটাতে একটি গবেষণা প্রতিবেদন তৈরি করেছিলেন বিজ্ঞানী ফ্র্যাঙ্কো বচি। তাঁর ওই প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছিল ইউরোপিয়ান জার্নাল অব ফিজিকসে। সেখানে বচি বলেন, ‘বৃষ্টিতে হাঁটবেন, নাকি দৌড়াবেন—এটা নির্ভর করবে একজনের শারীরিক কাঠামোর ওপর।’

এরপর এর বিস্তর ব্যাখ্যা দিয়ে বচি তাঁর প্রতিবেদনে উল্লেখ করেন, হালকা-পাতলা গড়নের ব্যক্তিরা বৃষ্টিতে দৌড়াদৌড়ি না করে ধীরে-সুস্থে হাঁটলেও পারেন। কারণ, মোটা ব্যক্তিদের চেয়ে বৃষ্টিতে অল্প সময়ে তাঁরা কম ভিজবেন। বচি তাঁর যুক্তি দিয়ে বলেন, রোগা ব্যক্তিদের সাধারণ হাঁটার গতিই স্থূল ব্যক্তিদের চেয়ে বেশি। তাই তাঁদের সাধারণ গতি ধরে হাঁটলেই তাঁরা বৃষ্টির হাত থেকে কিছুটা হলেও রেহাই পেতে পারেন।

তবে বৃষ্টি পড়ার গতি যদি বেশি হয়, তাহলে কিন্তু রোগা ব্যক্তিদেরও দৌড়ানোর পরামর্শ দিয়েছেন ইতালির ইউনিভার্সিটি অব ব্রেসার এই অধ্যাপক। আচমকা বৃষ্টি থেকে রেহাই পেতে কিছু ছোটখাটো টোটকাও বাতলে দিয়েছেন তিনি। এর মধ্যে রয়েছে বৃষ্টির ফোঁটা বা বাতাস যদি সরাসরি আপনার মুখে এসে লাগে, অর্থাৎ আপনি যেদিকে যাচ্ছেন বৃষ্টি বা বাতাস যদি এর বিপরীত দিকে বয়, তাহলে বাতাসের গতির সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলুন। সে সময় জোরে না দৌড়ালেও ক্ষতি নেই। একটু নিচের দিকে ঝুঁকে হাঁটুন।

এতে করে বিপরীত দিক থেকে আসা বৃষ্টির পানি সরাসরি আপনার বুকে এসে লাগবে না, বৃষ্টি আপনাকে কম ভেজাবে। আর বৃষ্টি কিংবা বাতাস যদি সেদিকেই যায় যেদিকে আপনি যাচ্ছেন, অর্থাৎ বৃষ্টির ফোঁটা বা বাতাসের বেগ যদি আপনার পিঠের দিকে বেশি লাগে, তাহলে হাঁটার গতি বাড়িয়ে দিন। অন্তত বাতাসের যে গতি, তাঁর চেয়ে একটু দ্রুত হেঁটে নিরাপদ আশ্রয়ে পৌঁছতে চেষ্টা করুন।

তবে বচির এসব ব্যাখ্যা যদি খুব বেশি কঠিন মনে হয়, তাহলে বরং এত কিছু না ভেবে সঙ্গে ছাতা রাখুন সব সময়। বৃষ্টির হাত থেকে রেহাই পেতে এর চেয়ে ভালো উপায় আর কীই-বা হতে পারে?






মন্তব্য চালু নেই