মেইন ম্যেনু

বৃষ্টি থেমেছে : অনুশীলনে মাশরাফিরা

টানা তিন দিন ধরেই বৃষ্টি হয়ে চলছে চট্টগ্রামে। তবে আশার কথা বুধবার দফায় দফায় বৃষ্টি আসলেও দুপুরের পর থেমেছে। তাই খেলা হওয়ার সম্ভবনা সৃষ্টি হয়েছে। উইকেটের কভার সরিয়ে মাঠ শুকানোর কাজ চলছে। আর এ ফাঁকেই অনুশীলনে নেমেছে মাশরাফি-সাকিবরা।

এদিন সকাল থেকেই গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হয়। আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রামে আজ বজ্রসহ হালকা থেকে মাঝারি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। সারাদিনে বৃষ্টি হতে পারে ১১ থেকে ২২ মিলিমিটার। বৃষ্টির সম্ভাবনা সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত। আবহাওয়া অফিস আর জানায়, সকাল থেকে বৃষ্টি হলে সেটা দুপুর কিংবা বিকেলের দিকে কমেও আসতে পারে।

ওয়ানডেতে ইংলিশদের বিপক্ষে নিশ্চিত জয়ের পথে থেকেও হারতে হয়েছে টাইগারদের। দ্বিতীয় ওয়ানডেতে দাপটের সঙ্গে জিতে মাশরাফিরা এখন ১-১ সমতায়। তাই অঘোষিত ফাইনাল হয়ে ওঠা সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় এক দিনের ম্যাচটি খেলতে আজ মাঠে নামছে বাংলাদেশ ও ইংল্যান্ড। সে লক্ষ্যে দুপুর ১২টার দিকে স্টেডিয়ামে প্রবেশ করে মাশরাফিরা। তবে বৃষ্টির কারণে ড্রেসিংরুমেই অলস সময় কাটাচ্ছিলেন বাটলাররা।

তবে বেলা সোয়া একটার দিকে বৃষ্টি থামার পর অনুশীলনে নামে তারা। যথারীতি প্রথমে মাঠে প্রবেশ করেন মুশফিকুর রহীম। এরপর তার সঙ্গে একে একে সবাই যোগ দেন। শুরুতেই মাঠের এক প্রান্তে ফুটবল নিয়ে ওয়ার্ম আপ করেন টাইগাররা। এছাড়া কেউ কেউ হ্যালসলের অধীনে ফিল্ডিং অনুশীলন করেন। ব্যাট হাতে টিম বয়কে নিয়ে ব্যাটিং অনুশীলন করেন মোসাদ্দেক হোসেন।

এর আগে সোমবারের পর গতকালও প্রায় সারা দিন বৃষ্টিতে ভিজেছে চট্টগ্রাম। রাতেও থামেনি বৃষ্টি। আজ সকাল ছয়টা পর্যন্ত পূর্ববর্তী ২৪ ঘণ্টায় ৪৪ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করেছে পতেঙ্গা আবহাওয়া দপ্তর। তবে কিছুদিন আগে চট্টগ্রাম জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামের মাঠ আধনিকায়ন করা হয়। আউটফিল্ডও উন্নত করা হয়। ড্রেনেজ সিস্টেমও উন্নত করায় ম্যাচটি গড়াবে বলেই আশা করছেন সবাই।






মন্তব্য চালু নেই