মেইন ম্যেনু

বেলজিয়ামে হামলায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৩১

বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলসের প্রধান আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ও মেট্রোরেল স্টেশনে মঙ্গলবার তিনটি বোমা বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে।

ব্রাসেলসের স্থানীয় সময় সকাল ৮টায় জাভেটেম বিমানবন্দরে এই বিস্ফোরণ ঘটে। দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় তাদের সবশেষ ব্রিফিংয়ে জানিয়েছে, বিমানবন্দরে বিস্ফোরণে নিহত হয়েছে ১১ জন। এর আগে বিভিন্ন গণমাধ্যমে এ সংখ্যা ১৩ জন বলা হয়েছিল। এখানে আহত হয়েছে কমপক্ষে ৩০ জন।

এ ঘটনার প্রায় ১ ঘণ্টা পর ইউরোপীয় ইউনিয়ন ইনস্টিটিউটের কাছে মায়েলবিক মেট্রোরেল স্টেশনে তৃতীয় বোমার বিস্ফোরণ ঘটে।

দুই স্থানে হামলায় হতাহতের সংখ্যা সরকারিভাবে নিশ্চিত করা না হলেও বেলজিয়ামের পরিবহণ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, মায়েলবিক মেট্রো স্টেশনে হামলায় নিহত হয়েছে ২০ জন এবং আহত হয়েছে কমপক্ষে ৫৫ জন।

এদিকে বিমানবন্দর ও মেট্রোস্টেশন মিলে নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩১ জনে।

দ্য বেলগা এজেন্সি নামে স্থানীয় একটি বার্তা সংস্থা জানিয়েছে, বিমানবন্দরে বোমা বিস্ফোরণের আগে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় আরবি ভাষায় হামলাকারীদের চিৎকার করতে শোনা গেছে।

প্রাপ্ত ভিডিও ফুটেজে বিস্ফোরণের পর বিমানবন্দর ভবনের ভেতর থেকে ধোঁয়া উদগিরণ ও লোকজনকে ছুটে বেরিয়ে যেতে দেখা গেছে। স্থানীয় এক সংবাদ মাধ্যমে বলা হয়েছে, বিমানবন্দরের আমেরিকান এয়ারলাইন্সের চেক ইন কাউন্টারের কাছে বোমার বিস্ফোরণ ঘটে।

এক প্রত্যক্ষদর্শীর বরাত দিয়ে সিএনএন জানিয়েছে, স্থানীয় সময় সকাল ৮টার দিকে টার্মিনালসংলগ্ন হোটেল থেকে বিস্ফোরণের শব্দ শুনতে পাওয়া যায়। তার ভাষায়,‘আমি হোটেল রুমের জানালার পর্দা সরিয়ে দেখি, ভয়ার্ত লোকজন টার্মিনাল ভবন থেকে ছুটে পালাচ্ছে।’ তিনি স্ট্রেচারে করে ১৯-২০ জনকে বহন করে নিয়ে যেতে দেখেন বলেও দাবি করেছেন।

এদিকে সরকারি কর্মকর্তারা গণমাধ্যমে একে ‘সন্ত্রাসী হামলা’ বলে উল্লেখ করেছেন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ ঘটনার পর দেশে সর্বোচ্চ জঙ্গি সতর্কতা জারি করেছে। তা ছাড়া যোগাযোগ ব্যবস্থা তাৎক্ষণিকভাবে বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

বিবিসি জানিয়েছে, বিস্ফোরণের পর বিমানবন্দরের চারপাশ ঘিরে রাখা হয়েছে। আপাতত এখানে বিমান ওঠানামা বন্ধ রয়েছে। বিমানবন্দরের রেল যোগাযোগ ব্যবস্থাও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, সব ফ্লাইট বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে। যাত্রীদের নিরাপদে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, এ ঘটনার মাত্র দুদিন আগে বেলজিয়াম থেকে প্যারিস হামলায় প্রধান সন্দেহভাজ আব্দেসালামকে আটক করা হয়েছিল। গত বছরের নভেম্বরে প্যারিসের ছয়টি স্থানে পরিচালিত ওই হামলায় ১৩০ জন নিহত হয়।






মন্তব্য চালু নেই