মেইন ম্যেনু

বয়স যেভাবে ১০ বছর কমে যাবে! দেখুন জাদুকরী ফার্মূলা

সজনে পাতা রান্না ছাড়াও ত্বকের সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে দারুণ কাজে আসে- এ কথা আমরা কম-বেশি সবাই জানি।

কিন্তু সজনে বীজ আপনার বয়স ১০ বছর কমিয়ে দিতে পারে, এটা কি জানেন! এখন নিশ্চয় প্রশ্ন করবেন কিভাবে?

সজনে বীজ পিষে তেল পাওয়া যায়। এই তেলে প্রচুর মাত্রায় ফটোনিউট্রিয়েন্টস থাকার কারণে এটি শুধু ত্বকের নয়, সার্বিকভাবে শরীরেরও অনেক উপকার করে। শুধু তাই নয়, সজনে বীজের তেলে বিপুল পরিমাণে ভিটামিন, প্রোটিন এবং উপকারি ফ্যাটি অ্যাসিড থাকায় এটি সৌন্দর্য বৃদ্ধিতেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।

আসুন তাহলে জেনে নেয়া যাক, সজনে বীজের তেল কীভাবে আমাদের ত্বকে পুষ্টি যোগায় এবং বয়স ১০ বছর কমিয়ে আনে।

নিম্নে বিস্তারিত আলোচনা করা হল;

ত্বকের বয়স কমায়: সজনে বীজের তেলে নানাবিধ খনিজ, ভিটামিন এবং এসেনশিয়াল ফ্যাটি অ্যাসিডে সমৃদ্ধ। তাই এটা বলিরেখা কমানোর মাধ্যমে স্কিনের বয়স কমাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

শুষ্ক ত্বকে পুষ্টি যোগায়: পরিবেশ দূষণের কারণে ড্রাই স্কিনের সমস্যা প্রতিদিন বাড়ছেই। এমনটা হলে সজনে বীজের তেল অল্প করে হাতে নিয়ে মুখে ম্যাসাজ করুন। কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন এতে ত্বকের উপরিঅংশে জমে থাকা ময়লার স্থর সরে যাবে এবং সারা দিনের ক্লান্তিও দূর হবে। ফলে স্ট্রেস লেভেল কমতে শুরু করবে।

অ্যালার্জি কমায়: এ তেলে প্রচুর মাত্রায় অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান থাকায় নিয়মিত ব্যাবহারে অ্যালার্জির প্রকোপ কমে। সেই সঙ্গে ত্বকের নানাবিধ প্রদাহও হ্রাস পায়।

ত্বকে মরাকোষ: ত্বক ড্রাই হয়ে যাওয়ার কারণে চামড়া উঠতে শুরু করে। এ সময় এ তেলটি ব্যবহার করুন। এতে এমন কিছু প্রাকৃতিক উপাদান রয়েছে, যা ত্বকের ভেতরে পানির মাত্রা ঠিক রাখতে সাহায্য করে। ফলে স্কিন তার হারিয়ে যাওয়া আদ্রতা ফিরে পায়।

ব্রন কমায়: ব্লাক হেডস, ব্রন এবং ফোঁড়ার প্রকোপ কমানোর পাশপাশি ত্বকের নানাবিধ রোগের উপসম করে এ তেলটি। এতে রয়েছে প্রচুর মাত্রায় অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ভাইরাল প্রপাটিজ। অল্প করে তেল হালকা গরম করে নিন। তারপর সেটি ভালো করে মুখে লাগিয়ে ম্যাসাজ করুন। সারা রাত তেলটা মুখে রেখে দিয়ে সকালে ধুয়ে ফেলুন।

খুশকি কমায়: অল্প করে এই তেলটি নিয়ে আপনার পছন্দের যে কোনো শ্যাম্পুর সঙ্গে মিশিয়ে মাথায় মাখুন। তারপর হালকা গরম পানি দিয়ে চুলটা ধুয়ে নিন। টানা ১ সপ্তাহ এভাবে পরিচর্যা করলে দেখবেন খুশকির সমস্যা একেবারে কমে গেছে।

চুলের সৌন্দর্য বৃদ্ধি পায়: ভিটামিন এবং এসেনশিয়াল ফ্যাটি অ্যাসিড থাকার কারণে সজনে বীজের তেল চুলের নানাবিধ সমস্যা কমায় এবং পাশপাশি সার্বিকভাবে চুলের সৌন্দর্য বৃদ্ধিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে।



« (পূর্বের সংবাদ)



মন্তব্য চালু নেই