মেইন ম্যেনু

মওলানা ভাসানীর নিন্দা ও ব্যঙ্গাত্মক টেলিগ্রাম

গণহত্যার শোক দিবস আর অর্ধদিবস হরতালের মধ্য দিয়ে শুরু হয় ৩ মার্চের দিনটি। মজলুম জননেতা মওলানা ভাসানী নিন্দা ও ব্যঙ্গাত্মক টেলিগ্রাম পাঠান পাকিস্তানি শাসক ইয়াহিয়া খানের কাছে। ঢাকার পল্টনের জনসভায় অহিংস আন্দোলনের ডাক দেন শেখ মুজিবুর রহমান। এ সভায় স্বাধীনতার ইশতেহার পাঠ করেন ছাত্রনেতা শাজাহান সিরাজ।

সকাল থেকেই মিছিলের নগরী হয়ে ওঠে ঢাকা। পার্লামেন্টারি গ্রুপের ১২ জন নির্বাচিত নেতাকে ১০ মার্চ বৈঠকে আমন্ত্রণ জানান ইয়াহিয়া খান। শেখ মুজিবুর রহমান এ আমন্ত্রণ প্রত্যাখ্যান করেন। দেশজুড়ে হতাহতের সংখ্যা ছিল দুই হাজারেরও বেশি।






মন্তব্য চালু নেই