মেইন ম্যেনু

মস্তিষ্কের দক্ষতা বাড়াবেন যেভাবে

ফারিন সুমাইয়া : আমাদের মস্তিষ্ক একটি পেশি দ্বারা আবৃত। আর এতে যুক্ত হাজারো রক্ত প্রবাহিত নালী। আপনি যখন কোনো বিষয়ে মারাত্মকভাবে দুশ্চিন্তায় থাকেন তখন এই সরু নালীগুলোতে চাপ পড়ে এবং সঠিক ভাবে রক্ত চলাচল করতে দেয় না। আর এতে ব্রেইন স্ট্রোক, মস্তিষ্কে রক্ত জমে যাওয়াসহ নানা সমস্যা সৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া আমাদের দৈনন্দিন জীবন তো এই মস্তিষ্কের সঙ্গ ছাড়া চিন্তাও করা যায় না। তাই একে রাখতে হবে সুস্থ্ এবং করতে হবে আরো দক্ষ।

প্রতিদিনের ব্যায়াম
প্রতিদিন একটি নির্দিষ্ট সময় ধরে কোনো অংক করা, কিংবা কোনো ধাঁধার উত্তর খুঁজে বের করা হতে পারে আপনার মস্তিস্কের জন্য উপযুক্ত ব্যায়াম। আপনার করা এই কাজগুলো আপনার মস্তিস্কে রক্ত চলাচলের মাত্রা ঠিক রাখবে এবং আপনার চিন্তা শক্তিকে বৃদ্ধি করতে সাহায্য করবে।

কৌতূহলকে প্রাধান্য দিন
সব কিছুকে টাকা দিয়ে মূল্যায়ন করা বন্ধ করুন। আপনার যা জানতে ইচ্ছে হয় সেই দিকে মনোনিবেশ করুন। যা আপনার মস্তিষ্ককে সাচ্ছন্দ্যে কাজ করতে সাহায্য করবে। এছাড়া এটি আপনার মস্তিষ্ককে নতুন নতুন বিষয় নিয়ে ভাবতে সাহায্য করবে। আপনি আপনার কৌতূহলকে প্রাধান্য দিতে যেয়ে অনেক কিছু আবিষ্কার ও করে ফেলতে পারেন।

নতুন কিছুর চেষ্টা
আপনি যখন নতুন কিছু নিয়ে চিন্তা-ভাবনা করেন কিংবা তাকে অন্য কোনো রূপ দিতে চান তখনই আপনার মস্তিস্কের প্রতিটি কোষে এক আলোড়নের সৃষ্টি হয়। যা আপনার মস্তিস্কের পরিধি বৃদ্ধি সহ নানা ভাবে আপনার মস্তিষ্ককে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে। আপনি একটি নির্দিষ্ট সময় পরে আর ক্লান্ত হয়ে যাবেন না কিংবা কাজে থেকে অমনোযোগী হয়ে যাবেন না। তাই মনোযোগ বাড়াতে আর মস্তিষ্ককে সুস্থ রাখতে নতুন কাজ করার চেষ্টা করুন।

সঠিকভাবে খাবার গ্রহণ
আমাদের শরীরের ২০% অক্সিজেন শোষণ করে আমাদের মস্তিষ্ক। আমরা যদি পরিমিতভাবে খাবার না খাই তবে মস্তিষ্কে এই অক্সিজেন সঠিকভাবে পৌঁছায় না। এছাড়া যারা কড়া ডায়েট এ থাকেন তাদের শরীর পরিমিত খাবার পায় না ফলে শরীর দুর্বল হয়ে পড়ে আর সঠিক ভাবে অক্সিজেন পায় না। ফলে মস্তিষ্ক ভালোভাবে কাজ করতে পারেনা। তাই আমাদের মস্তিষ্কের দক্ষতা বাড়াতে সঠিকভাবে খাবার গ্রহণ করতে হবে।






মন্তব্য চালু নেই