মেইন ম্যেনু

মাতাল বিচারক হাফ প্যান্ট পরে আদালতে

হাফ প্যান্ট ও টি-শার্ট পরে তিনি আদালতে হাজির হলেন মাতাল এক বিচারক। যার হাতে বিচারব্যবস্থার ভার তুলে দেয়া হয়েছে, সেই বিচারকই নিজেকে সামলানোর মতো অবস্থায় নেই। ভারতের ত্রিপুরায় একটি নিম্ন আদালতে মাতাল অবস্থায় প্রবেশের অভিযোগ উঠলো জ্যেষ্ঠমনি মুরাসিং নামে ওই বিচারকের বিরুদ্ধে।

শুধু তাই নয়, আদালতের কর্মী ও সহ বিচারকদের সঙ্গে দুর্ব্যবহারও করেন তিনি। ফলে তার বিরুদ্ধে তৎক্ষণাত শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেয়া হয়। আগামী দুটি বেতনবৃদ্ধি আটকে দেয়া হয় তার।

মাতাল হয়ে আদালতে কোনো বিচারকের হাজির হওয়াকে নজিরবিহীন ঘটনা বলে মনে করা হচ্ছে। জানা গেছে, দক্ষিণ ত্রিপুরার উদয়পুর আদালতে বিচারক থাকাকালীনও শাস্তি পেতে হয় এই বিচারককে।

অন্যদিকে একইদিনে চাকরি থেকে জোর করে অবসর নিতে বাধ্য করা হয়েছে প্রকাশ চন্দ্র বিশ্বাস নামে আরেক বিচারককে। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ, পিএইডি করার সময় তিনি নকল করেন। প্রকাশ বিশ্বাসের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধি অনুযায়ী ফৌজদারী প্রক্রিয়াও শুরু হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই