মেইন ম্যেনু

মাত্র এক চিমটে লবণ হয়ে উঠতে পারে সৌভাগ্যের চাবিকাঠি, জেনে নিন কীভাবে…

হিন্দু শাস্ত্রে সামুদ্রিক লবণকে অত্যন্ত পবিত্র বলে মনে করা হয়। বিবিধ হিন্দু ধর্মানুষ্ঠানে এবং পূজাকর্মে নুনকে অপরিহার্য অঙ্গ বলে মনে করা হয়। বাস্তুশাস্ত্র‌ে এমন নির্দেশও দেওয়া হচ্ছে যে, নুনের সঠিক ব্যবহার বদলে দিতে পারে মানুষের ভাগ্য। কীভাবে? রইল ৬টি পরামর্শ—

১. বলা হয়, নুন নেতিবাচক শক্তিকে বাড়ির বাইরে রাখতে সক্ষম। নুনের এই গুণের সুফল পেতে এক বালতি জলে কিছুটা নুন মিশিয়ে নিয়ে সেই জল দিয়ে ঘর মুছে নিন।

২. ছোট ছোট পাত্রে নুন ভরে রেখে দিন ঘরের বিভিন্ন জায়গায়। এতে বাস্তুদোষ দূর হবে।

৩. আপনি কি অবসাদ বা উদ্বেগে ভুগছেন? তাহলে একটি নুনের ডেলা মুঠোর মধ্যে ধরে রাখুন কিছুক্ষণ, তারপর বেসিনে সেই নুন সমেত হাতটি ধুয়ে ফেলুন। এতে শরীর থেকে নেতিবাচক শক্তি দূরীভূত হবে। তবে খেয়াল রাখবেন, হাত ধোওয়ার সময়ে নুন যেন বেসিনের বাইরে না পড়ে।

৪. ঘরের ছোটখাটো জিনিসপত্র পরিষ্কার সময় নুন ব্যবহার করুন। নুন স্ক্রাবার হিসেবে কাজ করে, ফলে জিনিসপত্র সহজেই পরিষ্কার হয়। তা ছাড়া এই অভ্যাসের ফলে সংসারে সমৃদ্ধিও আসবে।

৫. নজর লাগা থেকে কাউকে বাঁচাতে মুঠোর মধ্যে কিছুটা নুন নিয়ে যার তার মাথার উপর দিয়ে নুন ধরা হাতটি তিন বার ঘুরিয়ে দিন। কুদৃষ্টি থেকে রক্ষা পাবে সে।

৬. বাথরুমে একটি পাত্রে করে কিছুটা নুন রেখে দিন। পাত্রের নুন কিছু দিন পর পর বদলে দিন। এতে সংসারে সমৃদ্ধির ছোঁয়া লাগবে।






মন্তব্য চালু নেই