মেইন ম্যেনু

মাথায় গুলিবিদ্ধ ইস্তাম্বুলের মেয়র

অজ্ঞাত দুর্বৃত্তের ছোড়া গুলি মাথা ভেদ করায় তুরস্কের ইস্তাম্বুলের ডেপুটি মেয়রের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে স্থানীয় গণমাধ্যম এনটিভির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে। সোমবার ইস্তাম্বুলের সিসলি জেলায় এক দুর্বৃত্ত তার মাথা লক্ষ্য করে গুলি চালিয়েছে।

তবে শুক্রবারের ব্যর্থ সেনা অভ্যুত্থানে ৩ শতাধিক মানুষের প্রাণহানির সঙ্গে এ ঘটনার সম্পর্ক রয়েছে কিনা তা তাৎক্ষণিকভাবে নিশ্চিত হওয়া যায়নি বলে উল্লেখ করেছে তুর্কি টেলিভিশন চ্যানেল এনটিভি।

সেনা অভ্যুত্থান-পরবর্তী পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে দেশটির সরকার দাবি করলেও তুরস্কে ব্যাপক উত্তেজনা বিরাজ করছে।

সংবাদমাধ্যমটি বলছে, এক দুর্বৃত্ত ইস্তাম্বুলের ডেপুটি মেয়র সেমিল কানদাসের অফিসে ঢোকে। পরে গুলির শব্দ শোনা যায়। দেশটির প্রধান বিরোধী দল রিপাবলিকান পিপলস পার্টি (সিএইচপি) সমৃদ্ধ সিসলি জেলার ক্ষমতায় রয়েছে। অন্যান্য দলের ন্যায় সিএইচপিও সেনা অভ্যুত্থান চেষ্টার ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছে।

সোমবার তুরস্কের প্রধানমন্ত্রী বিনালি ইলদিরিম দেশটির তিন লাখেরও বেশি সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীর ছুটি বাতিলের ঘোষণা দেয়ার পর ইস্তাম্বুলের মেয়রকে লক্ষ্য করে গুলির ঘটনা ঘটলো।

এর আগে যাদের কারণে অভ্যুত্থান হয়েছে তাদের ‘ভাইরাস’ হিসেবে উল্লেখ করে রাষ্ট্র থেকে মুছে ফেলার অঙ্গীকার করেছেন প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান। শুক্রবারের ব্যর্থ সেনা অভ্যুত্থানে জড়িত সন্দেহে তুরস্কের ৮ হাজার পুলিশ কর্মকর্তাকে বহিষ্কার করা হয়েছে। এছাড়া দেশটির বিচার বিভাগের সদস্য ও সেনাবাহিনীর জেনারেলসহ আরো অন্তত ৬ হাজার জনকে আটক করেছে।






মন্তব্য চালু নেই