মেইন ম্যেনু

মাশরাফির অনুরোধেই মুক্তি পেলেন শাহাদাত

অবশেষে নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্তি পেয়েছেন বাংলাদেশ জাতীয় দলের পেসার শাহাদাত হোসেন রাজীব। ঘরোয়া ক্রিকেটে খেলার অনুমতি পেলেন তিনি। গত সেপ্টেম্বরে গৃহ পরিচারিকা নির্যাতনের অভিযোগে সব ধরণের ক্রিকেট থেকে নিষিদ্ধ করা হয় তাকে। এরপর প্রায় নয় মাস নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে আবার ক্রিকেট খেলার অনুমতি পেলেন তিনি। মুক্তি পাওয়ার পর শাহাদাত হোসেন রাজীব জানালেন, বাংলাদেশ জাতীয় দলের অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজার সুপারিশেই মুক্তি মিলেছে তার।

মঙ্গলবার মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামের একাডেমী মাঠে অনুশীলন করতে আসেন শাহাদাত। এক সময় স্টেডিয়ামে প্রিমিয়ার লিগের খেলা দেখতে আসেন তিনি। এ সময় শাহাদাত বলেন, ‘মাশরাফি ভাইয়ের সাথে কথা হয়েছে। হয়তো তার সুপারিশের কারণেই আমি খেলার সুযোগ পাচ্ছি। আমি যখন ছোটবেলায় যখন ক্রিকেট খেলি, তখন মাশরাফি ভাইই ছিলেন আমাদের অনুপ্রেরণা। আমি মাশরাফি ভাইয়ের সব সময় একজন বড় ভক্ত।’

বিপদের সময় পাশে থাকার জন্য বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সকল কর্মকর্তা, সাংবাদিক ও তার সতীর্থদের ধন্যবাদ জানান শাহাদাত। বিশেষ করে মাশরাফির কথা উল্লেখ করেন তিনি। বিপদের সময় মাশরাফি তাকে কী বলতেন জানতে চাইলে শাহাদাত বলেন, ‘উনি বলতেন, এমন হতে পারে। তুই অনুশীলন করে যা। ভালো কিছু হবে।’

এছাড়াও বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান পাপনের কথা উল্লেখ করেন শাহাদাত। বিসিবি প্রধানের কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন , ‘পাপন ভাই আমাকে খুব পছন্দ করেন। সব ক্রিকেটারকেই খুব পছন্দ করেন। গতকাল বিশেষ কিছু বলেননি। বললেন কেমন আছো। বলেছেন, দেখছি কী করা যায়।’

তবে পাপনের কথা বলার একদিন পরেই মুক্তি পেলেন শাহাদাত। গত বেশ কিছু ধরেই প্রিমিয়ার লিগে খেলার জন্য নিয়মিত অনুশীলন করে যাচ্ছেন তিনি। ঢাকা মোহামেডানের হয়ে অনুশীলন করছিলেন তিনি। তবে এখনও ঠিক বলতে পারছেন না কোন দলের হয়ে খেলবেন। তবে যে দলেই খেলবেন, নিজের সেরাটা দেওয়ার চেষ্টা করবেন বলে জানান শাহাদাত রাজীব।






মন্তব্য চালু নেই