মেইন ম্যেনু

মিঠাপুকুরে ১ চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল

মোঃ শামীম আখতার, উপজেলা প্রতিনিধি, মিঠাপুকুর (রংপুর)॥ রংপুরের মিঠাপুকুরে যাচাই-বাছাইয়ের শেষ দিন বুধবার একজন চেয়ারম্যান ও ৪ সদস্য প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে। বর্তমানে চেয়ারম্যান পদে ৩৮, সাধারন সদস্য পদে ২৯৮ এবং সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ১১৬ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ্য রয়েছে।

উপজেলা নির্বাচন অফিস সুত্রে জানা যায়, উপজেলা ইমাদপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী লিপন খাঁনের মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়েছে। ২০০৯ সালের ২৫ ও ২৬ ফেব্রুয়ারী সংঘটিত বিডিআর বিদ্রোহ মামলায় তার ১ বছর সাজা হওয়ায় নির্বাচনী বিধি মোতাবেক তার মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। তিনি ৪৪ রাইফেল ব্যাটেলিয়নের সিপাহি ছিলেন। তার নং- ৫৭৯৯৯। লিপন খান বিডিআর বিদ্রোহ মামলার রায়ে ২০১২ সালের ২৮ আগষ্ট থেকে ২০১৩ সালের ২৭ আগষ্ট পর্যন্ত সাজা ভোগ করেন। তিনি ইমাদপুর ইউনিয়নের ফরিদপুর গ্রামের মৃত রুস্তম আলী খানের পুত্র। তবে, তার স্ত্রী মুক্তা বেগমের মনোনয়নপত্র বৈধ্য হওয়ায় তিনি নির্বাচন করছেন।

২৩ এপ্রিল নির্বাচন যেসব ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে সেগুলো হলো- ৩নং পায়রাবন্দ ইউনিয়ন, ৬নং কাফ্রিখাল, ৭নং লতিবপুর, ১৪নং দুর্গাপুর, ১৫নং বড় হযরতপুর, ১৬নং মির্জাপুর ও ১৭নং ইমাদপুর ইউনিয়ন। আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি, ইসলামী শাসনতন্ত্র আন্দোলন এবং স্বতন্ত্র প্রার্থীসহ ৩৮ জন চেয়ারম্যান পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। এরমধ্যে ইমাদপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান পদে ১ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়।

এছাড়াও, ৭ টি ইউনিয়নে সংরক্ষিত ২১টি নারী ওয়ার্ডে ১১৬ জন এবং ৬৩ ওয়ার্ডে সাধারন সদস্য পদে ৩০২ জন প্রার্থী ২৭ মার্চ শেষ দিনে মনোনয়নপত্র জমা দেন। বুধবার যাচাই-বাচাইকালে একজন চেয়ারম্যান প্রার্থী এবং সাধারন সদস্য পদে ৪ জনের মনোনয়নপত্র বাতিল হয়ে যায়। এর মধ্যে কাফ্রিখাল ইউনিয়নে ৩ জন এবং পায়রাবন্দ ইউনিয়নে একজন রয়েছে। ২৩ এপ্রিল অনুষ্ঠিত ওই ৭টি ইউনিয়নে প্রায় দেড় লাখ ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করবেন। এদিকে, বাকী ১০ ইউপিতে আগামী ৭ এপ্রিল মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন। ভোট গ্রহন হবে আগামী ৭ মে।






মন্তব্য চালু নেই