মেইন ম্যেনু

মেঘ দেখলে বাঁজে ছুটির ঘন্টা!

কল্যাণ কুমার চন্দ, বরিশাল প্রতিনিধি: বিদ্যালয় ভবনকে পরিত্যক্ত ঘোষণা করে তালাবদ্ধ করে দেয়ায় একটি প্রাইমারি স্কুলের কোমলমতি শিক্ষার্থীদের পাঠদান করানো হচ্ছে খোলা আকাশের নিচে। তাই আকাশে মেঘ দেখলেই ওই স্কুলে বেঁজে ওঠে ছুটির ঘন্টা। ফলে স্কুলের শিক্ষার্থীদের পড়াশুনা মারাত্মকভাবে ব্যহত হচ্ছে। ঘটনাটি জেলার আগৈলঝাড়া উপজেলার রত্নপুর ইউনিয়নের পূর্ব মোহনকাঠী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের।

বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধানশিক্ষক আবুল কালাম শরীফ জানান, ঝুঁকিপূর্ন ভবনে গত দু’বছর ধরে চারজন শিক্ষক প্রায় দু’শতাধিক শিক্ষার্থীদের পাঠদান করিয়ে আসছে। প্রতিনিয়ত শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের জীবনের ঝুঁকি নিয়েই স্কুল ভবনে পাঠদান করানো হতো।

সম্প্রতি সময়ে একাধিকবার বিদ্যালয় ভবনের প্লাাস্টার খসে পরে শিক্ষক, শিক্ষার্থীরা আহত হয়েছে। বর্তমানে বিদ্যালয় ভবনটি অধিক ঝুঁকিপূর্ন হয়ে পরে। ফলে গত ৬ মার্চ উপজেলা সহকারী প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার জামাল গাজী সরেজমিন পরিদর্শন করে বিদ্যালয়ের ঝুঁকিপূর্ন ভবনের কক্ষগুলো তালাবদ্ধ করে দেন। সেই থেকে অদ্যবধি বিদ্যালয়ের পাশে পাঠদানের কোন জায়গা না থাকায় খোলা আকাশের নিচেই বাধ্য হয়ে শিক্ষার্থীদের পাঠদান করানো হচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, অতিসম্প্রতি মৌসুমী বৃষ্টিপাতের কারণে আকাশে মেঘ দেখলেই খোলা আকাশের নিচে পাঠদান করানো শিক্ষার্থীদের ছুটি দেয়া হয়। নতুন ভবন নির্মান ও পুরাতন ভবনটি সংস্কারের জন্য উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসে একাধিকবার আবেদন করলেও কোন সুফল মেলেনি বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ সিরাজুল হক তালুকদার বলেন, বিষয়টি উপজেলা পরিষদের সমন্বয় সভায় উপস্থাপন করে অস্থায়ীভাবে এডিপির অর্থায়নে ওই বিদ্যালয় মাঠে একটি টিনসেড ঘর নির্মান করে শিক্ষার্থীদের সাময়িক পাঠদানের ব্যবস্থার দাবি করা হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই