মেইন ম্যেনু

মেসি হতে চান না মাসচেরানো

বিশ্বের সর্বকালের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় ভাবা হচ্ছে আর্জেন্টাইন সুপারস্টার লিওনেল মেসিকে। এই খুদে জাদুকরের প্রতি জাতীয় দল ও ক্লাব সতীর্থ হাভিয়ের মাসচেরানোর ভালোবাসার অন্ত নেই। অথচ সেই মাসচেরানোই জানিয়েছেন, মেসির প্রতি সমালোচকদের বাড়াবাড়ি রকমের সমালোচনা এবং তার ওপর বিশাল চাপের কারণে তিনি মেসি হতে চান না।

চারবারের ফিফা বর্ষসেরা খেলোয়াড়ের পুরস্কারজয়ী লিওনেল মেসি বার্সেলোনার হয়ে বিশ্বব্যাপী সমাদৃত হন। তবে আর্জেন্টিনার হয়ে বার্সেলোনার মতো বিধ্বংসী রূপে আবির্ভূত হতে ব্যর্থ হওয়ায় বারবার সমালোচনার মুখে পড়েন এই খুদে জাদুকর।

মেসির প্রতি কোনো হিংসা বা বিদ্বেষ নেই তার জাতীয় দল ও ক্লাব সতীর্থ হাভিয়ের মাসচেরানোর। তারপরও তিনি মেসি হতে চান না। এমনটাই জানিয়েছেন এই মিডফিল্ডার।

হাভিয়ের মাসচেরানো বলেন, ‘আমি কখনো মেসি হওয়াটা উপভোগ করতাম না। তার মতো হতে হলো আপনাকে বিশেষ কিছু হতে হবে। নিজের চেয়ে অন্যকে নিয়ে কথা বলাটা আমাদের জন্য অনেক সহজ কাজ। আমি মেসি হওয়ার চাপ সামলাতে পারতাম না। আপনারা তাকে নিয়ে অতিরিক্ত মাত্রায় সমালোচনা করার পরও সে জাতীয় দলের হয়ে খেলে যাচ্ছে। সে কিছুই লুকায় না। এমনকি তার স্ত্রী যখন নতুন সন্তানের জন্ম দিতে যাচ্ছে তখনও সে (জাতীয় দলের হয়ে) খেলে যাচ্ছে।

২০১৪ বিশ্বকাপের ফাইনালের পর কোপা আমেরিকার ফাইনাল- এক বছরের ব্যবধানে দু’দুটি মেজর টুর্নামেন্টের শিরোপা হাতছাড়া করে লিওনেল মেসির আর্জেন্টিনা। এই দুঃসময় পেছনে ফেলে ঘুরে দাঁড়াতে চান মাসচেরানো।

মাসচেরানো বলেন, ‘হার নিয়ে কান্না করার কোনো মানে হয় না। তবে হারের কারণগুলো খুঁজে বের করতে হবে, যাতে করে পরবর্তীতে এটি না ঘটে। আমরা আমাদের দায়িত্ব-কর্তব্য সম্পর্কে অবহিত আছি এবং দীর্ঘ সময় ধরে আমরা যে জাতীয় দলের হয়ে কিছুই জিততে পারিনি সে কারণে যে পরিস্থিতি আরো কঠিন থেকে কঠোরতর হচ্ছে সেটাও জানি। তবে আমাদরে এ নিয়েই বেঁচে থাকতে হবে এবং নিশ্চিত করতে হবে যে আরেকটি ফাইনালে আমাদের এভাবে কাঁদতে হবে না।’

এরপর সমালোচকদের তোপ দাগলেন মাসচেরানো, ‘আমরা ফুটবল খেলোয়াড়রা সর্বদা নিজেদের সেরাটা নিংড়ে দিতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করে থাকি। আমরা তো কোনো অপরাধ করিনি যে আমাদের কিছু লুকাতে হবে। আমরা আমাদের দায়িত্ব সম্পর্কে সচেতন এবং এটা জানি যে আমাদের কী করতে হবে।’

বিশ্বকাপ ফাইনালের চেয়েও কোপা আমেরিকার ফাইনালের হারটি নাকি বেশি কষ্ট দিয়েছে আর্জেন্টিনাকে। যে কারণে সমালোচকদের সমালোচনায় আরো কষ্ট পেয়েছেন তারা। এমনটাই জানিয়েছেন আর্জেন্টিনা ও বার্সেলোনার এই মিডফিল্ডার।






মন্তব্য চালু নেই