মেইন ম্যেনু

যুক্তরাষ্ট্রে বিমানবন্দরে গুলিতে নিহত ৫

যুক্তরাষ্ট্রের ফ্লোরিডায় লডারডেল বিমানবন্দরে বন্দুক হামলায় নিহত হয়েছেন পাঁচজন।

বিমানবন্দর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, স্থানীয় সময় শুক্রবার বিকেলে টার্নিমাল ২-এর কাছে ব্যাগ বুঝে নেওয়ার স্থানে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

বিবিসি অনলাইনের এক খবরে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এ হামলায় আহত হয়েছেন কমপক্ষে আটজন। ধারণা করা হচ্ছে, হামলাকারী ইরাক যুদ্ধের একজন যোদ্ধা। তাকে হেফাজতে নেওয়া হয়েছে।

টার্মিনাল ২-এর পাশে ব্যাগ বুঝে নিতে দাঁড়িয়ে থাকা যাত্রীদের সঙ্গে ছিলেন বন্দুকধারী। হঠাৎ তিনি গুলি ছুড়তে শুরু করেন। এ সময় লোকজন ছুটে পালান এবং অনেকে লোকানোর চেষ্টা করেন।

বন্দুকধারী এমনভাবে পোশাকে সজ্জিত ছিলেন যে, প্রথম দেখায় তাকে ২০ বছরের তরুণ মনে হচ্ছিল। তার পরণে ছিল স্টার ওয়ারস টি-শার্ট। গুলি চালানোর সময় তিনি কিছুই বলেননি।

ফ্লোরিডার সিনেটর বিল নেলসন গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, হামলাকারীর পরিচয় শনাক্ত হয়েছে। তার নাম এসটেবান সান্টিয়াগো। তবে আইন প্রয়োগকারী কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে তা এখনো নিশ্চিত হয়নি।

প্রক্ষ্যতদর্শীরা জানিয়েছেন, গুলি ফুরিয়ে যাওয়ার পর বন্দুকধারী পুলিশের কাছে আত্মসমর্পণ করেন। কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, তিনি যাত্রী ছিলেন। আনলোডেড বন্দুক ও গুলিসহ ব্যাগ চেকইন করান তিনি। বিমান অবতরণের পর বাথরুমে বন্দুকে গুলি ভরেন এবং ব্যাগ সংগ্রহ করেন।

যুক্তরাষ্ট্রে বন্দুক-গুলি নিয়ে বিমান ভ্রমণের আইন আছে। আনলোডেড বন্দুক কঠোর নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে বিমানে বহন করা হয়।






মন্তব্য চালু নেই