মেইন ম্যেনু

যে কারনে বড় মেয়েদের প্রেমে পড়ে ছেলেরা !

এই প্রেম কতটা পরিণতির দিকে যায় সেটা মুখ্য বিষয় নয়। তার চেয়েও বড় কথা হলো প্রায় প্রত্যেকের জীবনেই কোন না কোন সময় আসে যখন নিজের চেয়ে বড় কোন নারীকে ভাল লেগে যায়।

স্কুলের লাস্ট বেঞ্চে বসে ম্যাডামের দিকে হা করে তাকিয়ে থাকা! পুজোর প্যাণ্ডেলে বন্ধুদের ভিড় থেকে আলাদা করা পাশের বাড়ির বয়সে বড় কাউকে। ঠিক তেমন, যেমন জমিন থেকে দাঁড়িয়ে আকাশের ‘সব থেকে বড়’ উজ্জ্বল নক্ষত্র চোখ টেনে নেয়! প্রেমেও কি হয় তেমনটা? সবার না হলেও, এমন অভিজ্ঞতা আছে ব্যাতিক্রমী কিছু চরিত্রের। নিজের বয়সের থেকে বেশি বয়সের মেয়েদের সঙ্গে প্রেম। সমাজের মিথ ব্রেক করা এই ব্যাতিক্রমী প্রেমকাহিনি গুলোর কারণ অনুসন্ধান করা যাক:

বাকপটুতা : বয়সে বড় মেয়েরা কথাতে অতি পটু। ছেলেদের অভিব্যক্তি তাঁদের ক্ষেত্রে যেমন, “বয়সে বড় মেয়েদের কাছে অভিজ্ঞতা আর তাঁদের জীবনবোধ প্রেমিকের থেকে কম বয়সী মেয়দের তুলনায় অনেক বেশি সুন্দর ও গোছানো, যার কারণে কি বলতে হবে আর কোনটা একেবারে কাট করতে হবে, সেটা তাঁরা খুব ভালো জানে”।

গসিপ নেই : মেয়েরা নাকি খুব গসিপ করে। এমনটাই মিথ। এক্ষেত্রে বয়সে বড় মেয়েরা একেবারেই পরচর্চায় সময় দেননা। নিজেকে এবং নিজেদের সম্পর্ককে সবথেকে গুরুত্ব দেওয়াই তাদের স্বাভাবিক আচরণ।

আত্মবিশ্বাসী : বয়সে সদ্য যৌবনে পা দেওয়া মেয়েদের থেকে ২৫ পেরেনোদের আত্মবিশ্বাস অনেক বেশি। একটা টপিকেই ঘ্যান ঘ্যান তাঁদের না পছন্দ, দাবি বেশির ভাগ কম বয়সী ছেলেদের।

যৌনতায় আদর্শ : প্রত্যেক প্রেমের সম্পর্কেই যৌনতা এমন একটি বিষয় যা একেবারেই ফেলে দেওয়া যায় না, বরং যৌনতাই অনেক সময় প্রেমের চাবিকাঠি। আর এতে বড় মেয়েরা ছোট বয়সীদের থেকে অনেক ধাপ এগিয়ে থাকে।

চাহিদা নেই : এটা, দাও সেটা দাও, ওটা কর, এটা কর, এই মনোভাব একেবারেই থাকেনা বেশি বয়সী মেয়েদের।






মন্তব্য চালু নেই