মেইন ম্যেনু

যে ১০টি গুণ দিয়ে পুরুষদের মন জয় করেন বাঙালি মেয়েরা!

বাঙালি মেয়েদের সম্বোধনগুলি অনেক মিষ্টি হয়ে থাকে। আদুরে গলায় ‘ভাইয়া’ ডাক অন্যদের সাথে কোনো তুলনাই হয় না। বাঙালি মেয়েরা তর্কযুদ্ধে যেন অপরাজেয়। নিজেদের মতামতে তারা একেবারেই অনড়। সেই মত থেকে তাদের সরানো, ঠেলে পাহাড় সরানোর মতোই দুঃসাধ্য।

বলিউডে বাঙালি নায়িকারা প্রশংসা পাচ্ছেন অনেকদিন থেকেই। সৌন্দর্যের জন্য তারা বিখ্যাত। শুধু রুপোলি পর্দা বলে নয়, পুরো বাংলাদেশ এমনকি ভারতেও বাঙালি মেয়েদের রূপের সুনাম রয়েছে। শু‌ধু রূপ নয়, বাঙালিনীদের গুণের কদরও কম নয়। কিন্তু বাঙালি মেয়েদের বিশিষ্ট গুণগুলি ঠিক কী, যার কারণে তারা পুরুষদের মন জয় করেন? এখানে রইল তেমনই মিষ্টি ১০টি গুণের কথা যা সাবার কাছে প্রায় প্রবাদের আকার নিয়েছে—

১. বাঙালি মেয়েদের চোখদুটি অসম্ভব সুন্দর। তাতে একইসঙ্গে মিশে থাকে স্নেহ এবং ইশারা।

২. বাঙালি মেয়েরা কমবেশি সকলেই শিক্ষিত। বাঙালিনীদের পঠিত গল্প-উপন্যাসের বইয়ের সংখ্যা রীতিমতো ঈর্ষণীত।

৩. বাঙালি মেয়েদের আত্মবিশ্বাসের ঘাটতি কখনো হয় না। আর যদি বা কখনো তেমনটা হতে দেকা যায়ও তা নির্দ্বিধায় স্বীকার করতে পারে তারা।

৪. তারা যথেষ্ট স্বাবলম্বী। কখনো কোনো ব্যাপারে চট করে অন্যদের সাহায্য নিতে তারা চায় না।

৫. কখন কথা বলতে হয় এবং কখন বলতে হয় না, তা অত্যন্ত ভালভাবে তারা বোঝে।

৬. বাঙালিনীরা প্রায় সবাই গুণের আধার। নাচ, গান, ছবি আঁকা, আবৃত্তি— কিছু না কিছুতে তারা পারঙ্গম হবেই।

৭. বাঙালি মেয়েরা কমবেশি সকলেই মৃদু নারীবাদী।

৮. বাঙালি মেয়েদের সম্বোধনগুলি ভারি মিষ্টি। আদুরে গলায় ‘বাবু’ ডাকের তো কোনও তুলনা হয় না।

৯. বাঙালিনীরা অবধারিতভাবেই খাদ্যরসিক।

১০. বাঙালি মেয়েরা তর্কযুদ্ধে অপরাজেয়। নিজেদের মতামতে তারা একেবারেই অনড়। সেই মত থেকে তাদের সরানো, ঠেলে পাহাড় সরানোর মতোই দুঃসাধ্য।-এবেলা






মন্তব্য চালু নেই