মেইন ম্যেনু

রাখিবন্ধনে নিজের কিডনি দিয়ে মরণাপন্ন বোনকে বাঁচালেন ভাই!

রাখিবন্ধন উপলক্ষে বোনকে সেরা উপহার দিলেন বড় ভাই। কঠিন অসুখে ভোগা মুমূর্ষু বোনের জীবন বাঁচাতে নিজের কিডনি দান করে নজির গড়লেন ভারতের মুম্বাইয়ের যুবক।

মারাত্মক অসুখে অকেজো হয়ে গিয়েছে বছর উনত্রিশের যুবতীর কিডনি। তাকে বাঁচাতে গেলে দরকার একটি সুস্থ কিডনি। কিন্তু কে দেবেন সেই অঙ্গ? রাখীবন্ধন উত্‍সবের ঠিক আগের দিন আগে বোনকে অমূল্য সেই কিডনি দান করে স্নেহের নয়া সংজ্ঞা লিখলেন ৩৫ বছরের যুবক।

মুম্বাইয়ের গ্লোবাল হাসপাতালে অসুস্থ যুবতীর শরীরে সফল ভাবে প্রতিস্থাপিত হয়েছে তার দাদার কিডনি। হাসপাতাল সূত্রে খবর, অস্ত্রোপচারের পরে সুস্থ আছেন বোন ও দাদা দুজনেই। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে দিন তিনেকের মধ্যে ছাড়া পাবেন দাতা যুবক। তার বোনকে আপাতত সপ্তাহ দুয়েক পর্যবেক্ষণে রাখা হবে। সুস্থ হলে তারপর তার বাড়ির ফেরার পালা।

চিকিত্‍সকরা জানিয়েছেন, যুবতীর প্রাণ রক্ষা করতে গেলে একটি সুস্থ কিডনির প্রয়োজন দেখা দেয়। বাবা-মায়ের শরীরে ডায়াবেটিস থাকার দরুণ তাদের থেকে কিডনি পাওয়া সমস্যা হয়ে দাঁড়ায়। সেই সময় এগিয়ে আসেন যুবতীর দাদা। নিজের কিডনি দান করে বোনকে বাঁচাতে চান তিনি। মেডিক্যাল পরীক্ষার শেষে সেই কিডনি রোগীর শরীরে প্রতিস্থাপনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। – ইন্ডিয়া টাইমস






মন্তব্য চালু নেই