মেইন ম্যেনু

৩টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহন স্থগিত

রাণীনগরে সংঘর্ষ ককটেল বিস্ফোরণ, ৩ পুলিশসহ ১০ জন আহত

কাজী আনিছুর রহমান, রাণীনগর (নওগাঁ) সংবাদদাতা: রাণীনগরে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে কেন্দ্র দখল, ককটেল হামলা, পুলিশের ৫ রাউন্ড গুলি বর্ষন ও বিক্ষিপ্ত সংঘর্ষে তিন পুলিশসহ ১০ জন আহত ঘটেছে। এসময় স্থানীয় রিটার্নিং অফিসার ওই ইউনিয়নের আল-আমিন দাখিল মাদ্রাসা, লোহাচুড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ও সিম্বা ইউনইিটেড উচ্চ বিদ্যালয়ের কেন্দ্রের ভোট গ্রহন স্থগিত ঘোষনা করা হয়েছে। এদিকে এই ঘটনায় পুলিশ ৩জনকে আটক করেছে। এনিয়ে উপজেলা সদরে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে।

রাণীনগর থানার অফিসার ইনচার্জ আব্দুল লতিফ খান জানান, দুপুর দেড়টার দিকে আল-আমিন দাখিল মাদ্রাসা কেন্দ্রে আওয়ামীলীগের মনোনিত প্রার্থী আসাদুজ্জামান পিন্টুর সমর্থক ও স্বতন্ত্র প্রার্থী গোলাম মোস্তফার সমর্থকরা কেন্দ্র দখলের চেষ্টা করলে উভয়ের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে। এসময় ৫ টি ককটেলের বিস্ফোরন ঘটানো হয়। এতে পুলিশের এস,আই নুর আলম, কনষ্টেবল আব্দুল করিম, মোঃ রুহুলসহ ৫ জন আহত হয়। এর আগে লোহাচুড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে দুই পক্ষের সংঘর্ষে ৩ জন ও সিম্বা ইউনাইটেড উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে একই ঘটনায় আরও ২ জন আহত হয়েছে। আহতদের মধ্যে ৩ পুলিশকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তবে তিনি তদস্তের স্বার্থে আটককৃতদের নাম প্রকাশ করেননি। এছাড়া এলাকার সার্বিক পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে বলে ওসি জানিয়েছেন।

এদিকে নওগাঁর জেলা প্রশাসক ড. আমিনুর রহমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের জানান, ওই ৩ কেন্দ্রের শান্তিপূর্ন ও সুষ্টভাবে ভোট গ্রহন ব্যহত হওয়ায় ওই ৩ কেন্দ্রের ভোট গ্রহন স্থগিত ঘোষনা করা হয়েছে।






মন্তব্য চালু নেই