মেইন ম্যেনু

রানী নেফারতিতির কবরের সন্ধানলাভ!

রানী নেফারতিতির কবরের সন্ধান পাওয়া গেছে বলে দাবি করেছেন মিশরের একদল প্রত্নতত্ত্ববিদ। এ অাবিস্কারকে শতাব্দীর সবচেয়ে বড় ঘটনা বলে দাবি তাদের। রাজা তুতেনখামুনের সমাধির উত্তর দিকের দেয়ালে স্ক্যান করে এখনো নানা পরীক্ষা চালাচ্ছেন জাপানি বিশেষজ্ঞরা।

নীল নদের তীরে বিশ্বের সবচেয়ে সমৃদ্ধশালী এই সভ্যতা দীর্ঘ সময় ধরে রাণী নেফারতিতি এবং তার স্বামী ফারাও আখেনাটেনের শাসনে ছিল। রানী নেফারতিতি অসম্ভব সুন্দরী ছিলেন মনে করা হয়। বিশেষজ্ঞদের মত, নেফারতিতির সন্তান ছিলেন তুতেনখামুন। আবার কেউ কেউ তাকে তুতেনখামুনের সৎ মা বলেও দাবি করেন। তুতেনখামুনের জন্মের ১৯ বছর পর নেফারতিতির মৃত্যু হয় বলে ধারণা করা হয়।

রাজা তুতেনখামুনের মৃত্যু হয় প্রায় সাড়ে তিন হাজার বছর আগে। পরে ১৯২২ সালে লাক্সারে তার দেহাবশেষের সন্ধান পাওয়া যায়।






মন্তব্য চালু নেই